সব খবর সবার আগে।

‘মম চিত্তে হাতি নাচে ঘোড়া নাচে’, শোভন-বৈশাখীকে কটাক্ষ ভাস্বরের, তুমুল শোরগোল নেটপাড়ায়

এবারের পুজোতে সবথেকে চর্চায় রয়েছেন শোভন চট্টোপাধ্যায় ও বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়ের জুটি। পুজোর ফটোশুট, নানান সংবাদমাধ্যমে তাদের আড্ডা, একে অপরের নানান তথ্য ফাঁস, সব এখন ভাইরাল। সে শোভনকে ঘিরে বৈশাখীর নাচই হোক, বা গড়ের মাঠে বা ভিক্টোরিয়ার সামনে প্রেমালাপ বা হাতে হাত রেখে ঘোড়ার গাড়ি চড়া, সবেতেই যে কোনও নতুন প্রেমে পড়া তরুণ-তরুণীকে মাত দেবেন এই জুটি।

তবে তাদের এই ভিডিও ভালো চোখে নেন নি নেটবাসীরা। নানান কটাক্ষ ধেয়ে এসেছে তাদের নানান ভিডিও ঘিরে। ‘বুড়ো বয়সে ভীমরতি’, বা ‘দশমীর পর বিসর্জন দেওয়া হোক’, এমন নানান ধরণের কমেন্ট করা হয়েছে তাদের ভিডিওতে। এবার তাদের এই ভিডিওকে কটাক্ষ করে ছড়া লিখে ফেললেন অভিনেতা ভাস্বর চট্টোপাধ্যায়।

সেই কবিতায় মিডিয়াকেও কটাক্ষ করেছেন তিনি। “Digi media, news channel দেয় coverage/ বাড়ে trp কিন্তু ব্যাপারটা below average”, এমন নানান লাইন ব্যবহার করেছেন ভাস্বর নিজের লেখায়। দুই বাংলার মানুষ যে শোভন-বৈশাখীকে নিয়ে মজা করছে, সেকথাও তিনি লিখেছেন নিজের কবিতায়। লিখেছেন, “গোটা বংগ দেখে রংগ দুই অংগে/ করে রই করে রই করে রই”।

তবে বিতর্কের দিক থেকে কম যান না ভাস্বরও। তিনি মাঝে মধ্যেই ট্রোলড হয়ে থাকেন সোশ্যাল মিডিয়ায়। ইদে রোজা রেখে সেই ছবি নেট মাধ্যমে শেয়ার করার ফলে নেটিজেনদের রোষানলে পড়েন অভিনেতা। ব্রাহ্মণ সন্তান হয়ে কীভাবে তিনি এমন করতে পারলেন, সে নিয়ে ওঠে বিস্তর প্রশ্ন। এমনকি একুশের  নির্বাচনের সময় রুদ্রনীলকে সরাসরি বিঁধেছিলেন ছিলেন। নেটপাড়ায় বেশ স্পষ্ট বক্তা নামেই পরিচিত ভাস্বর।

শোভন-বৈশাখীকে নিয়ে তাঁর লেখা ছড়াও বেশ মনে ধরেছে নেটবাসীদেরও। কেউ কেউ কমেন্ট বক্সে লিখেছেন, “দাদা অসাধারণ। কতই রঙ্গ দেখি দুনিয়ায়”। আবার কেউ লিখেছেন, “দারুণ দারুণ 👏👏👏😄😄😄”। আবার কারোর মতে, “জব্বর লিখেছে তোমার কলম! এক্কেবারে খাঁটি সত্যি কথা লিখেছো! আর সহ্য  হচ্ছেনা! মনে হচ্ছে আমার হাতে যদি কোনো ক্ষমতা থাকতো, তাহলে এসব ন্যাকামি আর নোংরামো বন্ধ করে দিতাম, সমাজকে কলুষিত করার এ এক অভিনব পন্থা বের করেছে এরা….”। এমন নানান কমেন্টে ভরে উঠেছে ভাস্বরের কমেন্ট বক্স।

You might also like
Comments
Loading...