বিনোদন

মুম্বাইয়ে MAMI-র বোর্ডে পদত্যাগপত্র পাঠালেন করণ জোহর, বলিউডি বন্ধুদের চুপ থাকায় মন ভাঙল তার

তবে কি এবার বলিউডে জোহর ঘরানা শেষ হতে চলেছে? করণ জোহরের সাম্প্রতিক পদক্ষেপ তো সেইরকমই ইঙ্গিত দিচ্ছে। মুম্বাই মিরর সূত্রে জানা যাচ্ছে যে, মুম্বাই ফিল্ম ফেস্টিভাল আয়োজনের দায়িত্বে থাকা মুম্বাই অ্যাকাডেমি অফ মুভিং ইমেজের বোর্ড থেকে নিজেকে সরিয়ে নিচ্ছেন করণ। ইতিমধ্যেই তিনি বোর্ডের কাছে নিজের ইস্তফাপত্র পাঠিয়ে দিয়েছেন। যদিও বোর্ডের চেয়ারপার্সন অভিনেত্রী দীপিকা পাড়ুকোন তাকে অনেক বোঝানোর চেষ্টা করেছেন বলে খবর কিন্তু কোনওভাবেই এই বোর্ডে আর থাকতে রাজি নন তিনি।

সুশান্ত সিং রাজপুতের আত্মহত্যার খবর প্রকাশ্যে আসার পরেই বলিউডের নেপোটিজম সংক্রান্ত অন্ধকার দিকটা হঠাৎ করে সামনে চলে এসেছে। আর তার প্রথম আঁচ গিয়ে পড়েছে করণ জোহরের বিরুদ্ধে। করণ তারকা সন্তানদের নিজের ছবিতে আগে সুযোগ করে দেন বলে বরাবরের অভিযোগ ছিল। সুশান্তের মৃত্যু যেন সেই অভিযোগকে প্রতিষ্ঠা করে দিয়ে গিয়েছে। সুশান্ত এর শেষ মুক্তিপ্রাপ্ত ছবি ছিল ‘ড্রাইভ’ আর এই ছবি মুক্তি পেয়েছিল নেটফ্লিক্সে। ছবির প্রযোজক ছিলেন করণ। যদিও ওটিটি প্ল্যাটফর্মে সিনেমা রিলিজ করা নিয়ে করণ ও সুশান্তের মধ্যে মনোমালিন্য হয়েছিল বলেও খবর। ‘ড্রাইভ’ নেটফ্লিক্সে একেবারেই ড্রাইভ নিতে পারেনি, ছবির চিত্রনাট্যও অত্যন্ত খাজা বলে মত দিয়েছিলেন দর্শকরা। সুশান্তের মত একজন প্রতিভাকে এইভাবে শেষ করাকে মেনে নিতে পারেননি কেউই।

তাই করণের ওপর এখন রীতিমত ক্ষিপ্ত রয়েছেন সুশান্ত অনুরাগীরা। তার উপর বিতর্কে ঘি ঢেলেছে তার টক শো ‘কফি উইথ করণ’-এর কিছু পুরনো এপিসোডের ক্লিপিংস। সেখানে অভিনেত্রী সোনম কাপুর ও আলিয়া ভাটের সঙ্গে করণ জোহরও সুশান্ত সিং রাজপুতকে নিয়ে ঠাট্টাতামাশা করেছিলেন বলে অভিযোগ উঠেছে। তার ফ্যান ফলোয়িং হু হু করে কমছে। সোশ্যাল মিডিয়ায় চূড়ান্ত অ্যাক্টিভ করণ ইতিমধ্যে ইনস্টাগ্রাম ও টুইটারকে প্রায় বিদায়ই জানিয়ে ফেলেছেন।

তাছাড়া নেপোটিজম বিতর্কে বলিউডের তরফে করণ জোহরের সমর্থনে এখনও পর্যন্ত কেউই মুখ খোলেননি। পরিচালকের ঘনিষ্ঠমহল সূত্রে খবর এই বিষয়টা নিয়েই নাকি মন ভেঙে গিয়েছে করণের। তাই এই বোর্ড থেকে নিজেকে সরিয়ে নেওয়ার চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিয়েছেন জোহর পরিবারের এই ‘উজ্জ্বল’ সদস্য। এ বিষয়ে করণ জোহরের টিমের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলেও এখনও পর্যন্ত কোনও প্রতিক্রিয়া মেলেনি।

Related Articles

Back to top button