বিনোদন

একসঙ্গে প্রসেনজিৎ-মিথিলা! শৌভিক কুন্ডুর আপকামিং ছবি “আয় খুকু আয়”তে জুটি বাঁধছেন বুম্বাদা ও সৃজিত ঘরনি?

এবার একসঙ্গে রূপোলি পর্দায় জুটি বাঁধছেন প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায় ও রাফিয়াত রশিদ মিথিলা। শুট শুরু হচ্ছে সোমবার থেকে। মূলত শৌভিক কুন্ডুর ছবি ‘আয় খুকু আয়’তে বুম্বাদা আর মিথিলাকে একসঙ্গে দেখা যাওয়ার গুঞ্জন শোনা যাচ্ছে। সঙ্গে রয়েছেন টলিউডের আরও এক ঝাঁক জনপ্রিয় তারকা। যাদের নাম দেখে বোঝা যাচ্ছে শৌভিক কুন্ডুর আগামী ছবি একপ্রকার ঝড় তুলতে চলেছে টলিউডে।
আগেই জানা গিয়েছিল এই ছবিতে প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়ের মেয়ের চরিত্রে দেখা যাবে দিতিপ্রিয়া রায়কে। সেই সঙ্গে ছবিতে রয়েছে আরও কিছু গুরুত্বপূর্ণ চরিত্র। যাতে অভিনয় করবেন সোহিনী ভট্টাচার্য, বুদ্ধদেব ভট্টাচার্য, শঙ্কর দেবনাথ, সত্যম ভট্টাচার্য্য ও রাহুল দেব বোস। পাশাপাশি গানের দায়িত্বে রয়েছেন সুরকার রণজয় ভট্টাচার্য ও শৌভিক।
জানা গিয়েছে, হেমন্ত মুখোপাধ্যায় ও শ্রাবন্তী মজুমদারের সেই জনপ্রিয় গান ‘আয় খুকু আয়’ শোনা যাবে এই ছবিতে। কিন্তু অন্যরকমভাবে। এই সময়ের কথা মাথায় রেখে গানটিকে নতুনভাবে তৈরি করতে চলেছেন সুরকার রণজয়। মনে হচ্ছে কন্ঠ দেবেন শ্রীকান্ত আচার্য। প্রযোজনার দায়িত্বে রয়েছেন জিৎ। এরইমধ্যে সামনে এসেছে ছবির প্রথম লোগোও।
লোগোতে ছবির নাম ‘খুকু’ শব্দের মাথায় কুমকুম টিপ। সঙ্গে রয়েছে চন্দনের কারুকাজ। “আয়” শব্দে গাছকৌটোর ছবি রয়েছে। আর পুরোটাই মনে হচ্ছে যেন রয়েছে পদ্ম পাতার উপরে কিছুটা শিশির বিন্দুর মতো। কিন্তু তা বার্তা হয়ে পৌঁছে গিয়েছে সিনেমাপ্রেমীদের কাছে। “সুইজারল্যান্ড”-এ মধ্যবিত্ত বাড়ির স্বপ্ন তুলে ধরার পর এবার বাবা-মেয়ের গল্প সকলকে বলতে চলেছেন পরিচালক।
একটি মেয়ের ছোট থেকে বড় হয়ে ওঠার কাহিনী থাকবে এই গল্পে। এমনকি বাঙালি রীতি অনুযায়ী মেয়ের হাত ধরে বিয়ের মন্ডপেও তাঁকে পৌঁছে দেবেন বাবা। এরপর! আপাতত এটুকুনি। বাকিটা না হয় থাক। এদিন নিজের ছবি নিয়ে কথা বলতে গিয়ে পরিচালক জানান, “শহুরে বাবা-মেয়ে নয়, আমার ছবি বলবে গঞ্জের বাবা-মেয়ের কাহিনী। আজ পর্যন্ত যা বড়পর্দায় কেউ তুলে ধরেননি!”
আগেই দেখেছি, এমনিতেই তাঁর ধারণা শক্তি সবার থেকে আলাদা। সবকিছুকে ভিন্নভাবে ভেবে থাকেন তিনি। তাই এবারও সকলের থেকে আলাদা কিছু করার পরিকল্পনা রয়েছে তাঁর। শোনা গেছে, বোলপুরের আশেপাশের লোকেশন আর কলকাতায় সেট পড়বে” আয় খুকু আয়”-এর। তবে এই ছবিতে দ্বৈত চরিত্রে রয়েছেন বুম্বাদা। পরিচালক জানিয়েছেন, এর আগে তাঁকে এরকম চরিত্রে দেখা যায়নি। যেহেতু দ্বৈত চরিত্র আর একাধিক বয়সে দেখা যাবে তাঁকে তার জন্য দরকার রূপটানের। প্রস্থেটিক রূপটানের। যে দায়িত্ব নিয়েছেন সোমনাথ কুন্ডু।
তবে মিথিলা কে? যদিও ঠিকভাবে মিথিলার নাম উচ্চারণ করেননি পরিচালক। কিন্তু গুঞ্জন বলছে, এবার বুম্বাদার সঙ্গে স্ক্রিন শেয়ার করতে চলেছেন সৃজিত ঘরনি। পরিচালক জানিয়েছেন, গল্পটি লিখেছেন বুম্বাদাকে ভেবেই। চিত্রনাট্যে সহযোগী হয়েছেন সুগত সিংহ।
 ছবির গল্প শোনার পর একই কথা বলেছেন প্রযোজকও। ইদানিং চরিত্র নিয়ে পরীক্ষা-নিরীক্ষা চলছে তাঁর। কিন্তু যখন পরিচালককে প্রশ্ন করা হয় প্রসেনজিৎই  কেন? মুখে কুলুপ এঁটেছেন তিনি। শুধু একটাই জবাব, “দু’মাসের মধ্যে টিজার আর ট্রেলার সামনে আসবে। সেখানেই রয়েছে উত্তর। প্রথমবার এই ধরণের চরিত্রে দেখা যাবে বুম্বাদাকে। উচ্ছ্বসিত সকলে।

Related Articles

Back to top button