সব খবর সবার আগে।

“পুড়ে মরে যাক আমার তাতে কিচ্ছু যায় আসেনা”, সুশান্ত এর মৃত্যুতে এ কী বললেন সোনাক্ষী?

সম্প্রতি স্বজন পোষণের বিরুদ্ধে যেভাবে আগুন জ্বলে উঠেছে বলিউড ইন্ডাস্ট্রিতে তার আঁচ লাগল শত্রুঘ্ন সিনহার কন্যা অভিনেত্রী সোনাক্ষী সিনহার গায়েও। স্বাভাবিকভাবেই তিনি করে ফেললেন প্রত্যুত্তর। আর তার সেই জবাবই নতুন করে বিতর্কের আগুনে ঘি ঢালল।

সোনাক্ষী শুরু থেকেই বলে আসছিলেন যে সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর জন্য বলিউডের স্টার কিডদের কোনভাবেই দায়ী করা যায় না। সেখানে সাধারণ মানুষ বলেছেন যে তিনি নিজে যেহেতু একজন স্টার কিড তাই নিজের পিঠ বাঁচাবার জন্য এরকম কথা বলছেন। সলমান খানের বিরুদ্ধে নেপোটিজমের যে ভয়ঙ্কর অভিযোগ উঠেছে তার কিছুটা আঁচ সোনাক্ষীর গায়ে লেগেছে কারণ সোনাক্ষী সলমান খানের দাবাং সিনেমার মাধ্যমেই বলিউডে আত্মপ্রকাশ করেছিলেন।

এবার সুশান্তের মৃত্যু প্রসঙ্গে একটি বিষয়ে তিনি প্রতিক্রিয়া জানালেন। সম্প্রতি পূজা মিশ্র নামে এক অভিনেত্রী মডেল সলমান খানের উপর গণধর্ষণের অভিযোগ করেন এবং তিনি আরও বলেন যে এটার পরে নাকি সলমান সোনাক্ষীকে দাবাং সিনেমাতে লঞ্চ করে এবং তার সঙ্গে এই জঘন্য কাজ করার পরেও তাকে ফেলে দেওয়া হয়।

স্বাভাবিকভাবেই এই কথা কানে যায় সোনাক্ষীর। তিনি তখন নিজের টুইটার অ্যাকাউন্ট ডিলিট করেন এবং তার একটি স্ক্রিনশট নিয়ে ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করেন। ক্যাপশন দেন, আগ লাগে বস্তি মে, ম্যায় আপনি মস্তি মে।

তার এই ক্যাপশন দেখেই ক্ষোভে ফেটে পড়েন তার অনুরাগী থেকে শুরু করে বাকি মানুষরা। যেখানে বলিউড ইন্ডাস্ট্রির তাবড় তাবড় মানুষরা এই ঘটনায় এত প্রতিক্রিয়া দিচ্ছে, সাধারণ মানুষ সুশান্ত সিং রাজপুত এর অস্বাভাবিক মৃত্যুতে রীতিমতো ক্ষুব্ধ সেখানে সোনাক্ষী নিজের মস্তিতে এই সময় কী করে থাকতে পারেন তা মাথায় আসছে না কারোরই। বলিউড ফিল্ম ফ্র্যাটারনিটির একজন অংশ হিসাবে সোনাক্ষীর উচিত ছিল অনেকটা নরম হওয়া যেখানে তারই একজন সহকর্মীর অস্বাভাবিক মৃত্যু হয়েছে মাত্র ৬ দিন আগে। যদিও নিন্দুকেরা বলছেন সোনাক্ষীর কাছ থেকে এরকম মন্তব্য আশা করা স্বাভাবিক কারণ তিনিও একজন স্টারকিড এবং তাকে ইন্ডাস্ট্রিতে এনেছিলেন তো ভাইজানই, তাই না?

You might also like
Leave a Comment