বিনোদন

“বাবা লড়ছে হাসপাতালে, এখনো কুৎসা রটছে আমাদের নামে!” ক্ষিপ্ত পোস্ট সৌমিত্র কন্যার

অভিনেতা সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায় দীর্ঘ এক মাস ধরে মৃত্যুর সঙ্গে লড়াই করে চলেছেন। কখনো শারিরীক অবস্থার সামান্য উন্নতি হচ্ছে আবার কখনোবা এমন সংকটজনক পরিস্থিতি হচ্ছে যে চিকিৎসকরা চিন্তায় পড়ে যাচ্ছেন। কিন্তু বাঙালির ফেলুদা লড়াই থামাননি। শেষ পাওয়া খবর অনুযায়ী, ডায়ালিসিসের পর এখন কিছুটা হলেও স্থিতিশীল অবস্থায় রয়েছেন সৌমিত্র ৷

এরমধ্যে ফেসবুকে বিস্ফোরণ ঘটালেন তার মেয়ে পৌলমী বসু। তিনি লিখলেন যে এই রকম বিপদের দিনেও তাদের নামে কিছু মানুষ সোশ্যাল মিডিয়ায় কুৎসা রটিয়ে বেড়াচ্ছে, মিথ্যা খবর পরিবেশন করছে!

তিনি কিছু স্ক্রীনশট পোস্ট করেছেন এবং বলেছেন যে, এই স্ক্রীনশট গুলো এড়িয়ে যাওয়া যেতেই পারে। আমি একটুও বিচলিত নই বিশেষত যখন আমার বাবা ভয়ঙ্কর লড়াই করছেন হাসপাতালে।কিছু মানুষ এখনো সঠিক তথ্য না জেনেই কুৎসা রটিয়ে চলেছেন। তিনি সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায় এর নাম করে প্রকাশিত মিথ্যা খবরের লিংকও পোস্ট করেছেন ফেসবুকে। এর আগে যখন সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়ের হাসপাতালে ছবিগুলি সোশ্যাল-মিডিয়ায়-ভাইরাল হয়ে গিয়েছিল সেই সময়ও প্রতিবাদে গর্জে উঠেছিলেন তার মেয়ে।

এখন কেমন আছেন সৌমিত্র বাবু?জানা গিয়েছে তার অবস্থা আপাতত স্থিতিশীল কিন্তু রক্তের শ্বেতকণিকা, হিমোগ্লোবিনের মাত্রা এবং প্লেটলেট কমে যাওয়াতেই এখনো বিপদমুক্ত হননি এই কিংবদন্তি অভিনেতা। রক্তক্ষরণ হওয়ার পর তাকে রক্ত দিতে হয়েছিল এবং বেশ কিছু ওষুধ পত্র দেওয়া হয়েছিল তার জেরেই এমনটা হতে পারে বলে মনে করছেন চিকিৎসকরা।

আজ তার কিডনির কার্যক্ষমতা বাড়ানোর নিয়ে বিশেষজ্ঞদের পরামর্শ নেওয়া হবে। এছাড়াও সংক্রামক রোগ বিশেষজ্ঞদের সঙ্গে কথা বলা হবে অ্যান্টিবায়োটিক কতদিন চলবে তার ওপর সেই নিয়ে। মোটকথা কোনির ক্ষিদ্দা কিন্তু নিজে লড়াইয়ের ময়দানে এখনও ছাড়েননি। আমরা সবাই তার সুস্থতা কামনা করছি এবং বলছি ফাইট ক্ষিদ্দা ফাইট!

Related Articles

Back to top button