সব খবর সবার আগে।

চরম বিপাকে ‘তাণ্ডব’ টিম! হিন্দু ধর্মকে অপমান করার মূল্য চোকাতে হবে, হুঁশিয়ারি যোগীর

কিছুদিন আগেই আমাজন প্রাইম ভিডিও-তে মুক্তি পেয়েছে ‘তাণ্ডব’ নামক ওয়েব সিরিজ। ওয়েব সিরিজটির পরিচালনায় রয়েছেন আলি আব্বাস জাফর। এই সিরিজ মুক্তির পর থেকেই বিতর্কের মুখে পড়েছে। হিন্দু ধর্মকে আঘাত ও হিন্দু দেবতাকে শিবকে অপমান করা হয়েছে এই সিরিজে, এমন অভিযোগই ওঠে। এই ওসেব সিরিজকে নিষিদ্ধ করার দাবী তোলা হয় সোশ্যাল মিডিয়াতে।

চারিদিকে বিতর্কের ফল পরিচালক আলি আব্বাস জাফর একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করে নিঃশর্ত ক্ষমা চান। কিন্তু তারপরেও বিতর্ক বিন্দুমাত্র থামেনি। এই পরিস্থিতিতে গতকালই উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী আদিত্যনাথ যোগী এই ওয়েব সিরিজের বিরুদ্ধে বড় পদক্ষেপ নেন। তাঁর উপদেষ্টা মৃত্যুঞ্জয় কুমার বলেন, উত্তরপ্রদেশে এই ধরণের কর্মকাণ্ড সহ্য করা যাবে না। তিনি আরও বলেন, এই ওয়েব সিরিজের নির্মাতাদের উপর কড়া পদক্ষেপ নেওয়া হবে। শুধুমাত্র মনোরঞ্জনের জন্য এই ধরণের ওয়েব সিরিজ গ্রহণযোগ্য নয়। এর জেরে ঘৃণা ছড়ানো হচ্ছে বলেও অভিযোগ উঠেছে। মৃত্যুঞ্জয় কুমারের কথায় এই সিরিজের মামলায় পূর্ণ তদন্ত করা হবে। সিরিজের গোটা টিমকে গ্রেফতারির উপর কাজ করা শুরু হয়েছে বলেও দাবী করেন তিনি।

এরপর আরও কঠোর সিদ্ধান্ত নিলেন যোগী। তাঁর মুখপাত্র সলভ মণি আজ টুইট করে এই ওয়েব সিরিজের বিরুদ্ধে হুঁশিয়ারি শানিয়েছেন। টুইট করে তিনি লেখেন, “উত্তরপ্রদেশের পুলিশ মুম্বইয়ের উদ্দেশ্যে রওনা দিয়েছে। তাও আবার গাড়ি নিয়ে। কড়া ধারায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। প্রস্তুত থাকুন, ধর্মীয় ভাবাবেগে আঘাত করার জন্য আপনাকে মূল্য চোকাতে হবে”। এরপর মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রীর অফিসকে ট্যাগ করে তিনি লেখেন যে, “আশা করি আপনি ওঁদের বাঁচাতে আসবেন না”।

এই ওয়েব সিরিজ নিয়ে তৎপর হয়েছেন অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাওয়াতও। টুইট করে তিনি লিখেছেন, “সমস্যা হিন্দু ফোবিক বিষয়বস্তু নিয়ে নয়। এটি গঠনমূলকভাবে খারাপ। বিতর্কিত ও আপত্তিকর দৃশ্যগুলি ইচ্ছাকৃতভাবে প্রত্যেক স্তরে রাখা হয়েছে। দর্শকদের উপর নির্যাতন ও অপরাধমূলক অভিপ্রায়ের জন্য তাঁকে জেলে পাঠানো উচিত”।

You might also like
Comments
Loading...