ব্যাবসা, বাণিজ্য ও অর্থনীতি

Covid19 Crisis: দু’মাসে ২৮ শতাংশ সম্পত্তি কমল মুকেশ আম্বানির

বিশ্বব্যাপী লকডাউনের জেরে ভুগতে হচ্ছে তথাকথিত ধনকুবেরদেরও। করোনা আতঙ্কের জেরে আর্থিকভাবে ভারতে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন দেশের সবচেয়ে ধনী ব্যক্তি মুকেশ আম্বানি। মাত্র ২ মাসে তাঁর সম্পত্তি কমেছে ২৮ শতাংশ।

সম্প্রতি চিনের সমীক্ষক সংস্থা মার্চের হিসেবে বিশ্বের ধনীতম ব্যক্তিদের তালিকা প্রকাশ করেছে। Hurun Global Rich List নামের ওই তালিকায় ৮ ধাপ নীচে নেমে ১৭তম স্থানে অবস্থান করছেন রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রিজের কর্ণধার মুকেশ আম্বানি। তাঁর মোট সম্পত্তি ৪৮০০ কোটি ডলার।

চিনের সমীক্ষক সংস্থাটি বলছে, শুধু আম্বানি একা নন, ভারতের সব শিল্পপতিরই সার্বিকভাবে সম্পত্তিহানি হয়েছে। গত দু’মাসে গড়ে ২৬ শতাংশ সম্পত্তি হারিয়েছেন ভারতের ধনকুবেররা। গৌতম আদানির মোট সম্পত্তি এক ধাক্কায় কমেছে ৩৭ শতাংশ। শিব নাদারের সম্পত্তি কমেছে ২৬ শতাংশ। উদয় কোটাকের সম্পত্তি কমেছে ২৮ শতাংশ। এঁরা কেউই আর বিশ্বের ১০০ জন ধনীর তালিকায় নেই। এই তালিকায় একমাত্র ভারতীয় মুকেশ আম্বানি।

Hurun Reports নামের ওই সংস্থার সমীক্ষা বলছে মুকেশের সম্পত্তি গত দু’মাসে প্রতিদিন প্রায় ৩০ কোটি ডলার করে তাঁর আয় কমেছে। ২ মাসে মোট ১৯০০ কোটি ডলার কমেছে তাঁর সম্পত্তি। সম্পত্তির লোকসানের বিচারে এই মুহূর্তে বিশ্বে দ্বিতীয় মুকেশ আম্বানি। তাঁর থেকেও দ্রুতহারে সম্পত্তি হারাচ্ছেন ফ্রান্সের এক ধনকুবের। মুলত করোনার জেরে ভারতের শেয়ার বাজারে রেকর্ড পতন এবং তেলের ব্যবসায় লোকসানের দরুন এই নিদারুন ক্ষতির মুখে রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রিজ।

এই তালিকায় শীর্ষে অ্যামাজন কর্তা জেফ বেজস। তিন নম্বরে বিল গেটস। ভারতীয়দের পাশাপাশি ব্যাপক হারে সম্পত্তি কমেছে বিল গেটস, মার্ক জুকারবার্গ, ল্যারি পেজ, মাইকেল ব্লুমবার্গের মতো আন্তর্জাতিক খ্যাতি সম্পন্ন ব্যবসায়ীদের।

Related Articles

Back to top button