ভাইরাল

অবিশ্বাস্য! কয়েক সেকেন্ডের মধ্যে ১০০টি দেশের রাজধানীর নাম গড়গড়িয়ে বলল ছোট্ট খুদে, ইন্ডিয়া বুক অফ রেকর্ডসে নাম কোলাঘাটের সমৃদ্ধির

বর্তমানে এই সোশ্যাল মিডিয়ার যুগে আমরা কত ধরণের জিনিসের কথাই জানতে পারি যা আমাদের অজানা। এমন নানান ছবি, ভিডিও আমাদের সামনে আসে যা আমাদের কখনও আনন্দ দেয়, আবার কখনও আবেগপ্রবণ করে তোলে তো আবার কখনও বা আমাদের মনে বিস্ময় জাগায়।

এই সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমেই আমরা কত প্রতিভার কথা জানতে পারি। এর বড় উদাহরণ হলেন বীরভূমের ভুবন বাদ্যকর অর্থাৎ বাদাম কাকু। এবার সোশ্যাল মিডিয়ায় এমন একটি ভিডিও ভাইরাল হল যা সত্যিই চমকে দিয়েছে সকলকে। এমনটাও যে হতে পারে তা অনেকেই যেন বিশ্বাস করতেই পারছেন না।

কোলাঘাটের বাথানবেড়িয়া গ্রামের ছোট্ট খুদে সমৃদ্ধি মাইতি। তাঁর প্রতিভার জেরে মাত্র তিন বছর বয়সেই সে জায়গা করে নিয়েছে ইন্ডিয়া বুক অফ রেকর্ডসের পাতায়। এতটুকু একটি মেয়ের এমন প্রতিভা দেখে বিস্মিত সকলেই। সমৃদ্ধি নাকি কয়েক সেকেন্ডের মধ্যেই ১০০টি দেশের রাজধানীর নাম অনায়াসেই বলে দিতে পারে।

না কথার কথা নয়, এর প্রমাণও মিলল ভাইরাল হওয়া এই ভিডিওতে। ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে কোলাঘাটের একটি অনুষ্ঠানে উপস্থিত রয়েছে ওই ছোট্ট খুদে সমৃদ্ধি। সঙ্গে তার মা ও বাবা। সেই অনুষ্ঠান মঞ্চেই তার মা নানান দেশের নাম তাকে বলছেন, আর সেও টপাটপ কোনও ভুল না করে, কোন জায়গায় না আটকে ওই দেশগুলির রাজধানীর নাম বলে দিচ্ছে।

ভারত তো বটেই, আমেরিকা যুক্তরাষ্ট্র থেকে শুরু করে রাশিয়া, কাতার, শ্রীলঙ্কা, নেপাল, নানান দেশের রাজধানীর নাম গড়গড় করে বলে গেল সমৃদ্ধি। এখানেই শেষ নয়, এর পাশাপাশি দেশের জাতীয় খাবার, জাতীয় পশু, পাখি, জাতীয় পতাকার রঙ, নানান মুনি-ঋষিদের জন্মদিন সবই তার ঠোঁটস্থ। সব উত্তরই ঝড়ের গতিতে বলে গেল সে। এমনকি, একটি কবিতাও শোনাল বছর তিনেকের সমৃদ্ধি। আর তার এই প্রতিভা দেখে যেন হাততালি ফেটে পড়ল মঞ্চে।

সমৃদ্ধি মাইতি কোলাঘাটের বাথানবেড়িয়া গ্রামের বাসিন্দা। তার মা একজন সর্বভারতীয় সঙ্গীত পরিষদের পরীক্ষক ও বাবা পেশায় একজন রেলকর্মী। ছোট্ট সমৃদ্ধির এই ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার হতেই মুহূর্তে ভাইরাল হয়েছে। প্রশংসার বন্যা বয়ে গিয়েছে নেটপাড়ায়। সকলে অনেক ভালোবাসা ও আশীর্বাদ করেছে এই ছোট্ট খুদেকে।

Related Articles

Back to top button