আন্তর্জাতিক

আমেরিকায় ট্রাম্পকে টক্কর দিতে ভাইস প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী হলেন ভারতীয় বংশোদ্ভূত কমলা হ্যারিস

ভারত আবার জগত সভায় শ্রেষ্ঠ আসন লবে, এই লাইনটি হয়তো সত্যি হতে চলেছে কমলা হ্যারিসের জন্য। মার্কিন নির্বাচনে ভাইস প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী হলেন ডেমোক্রেটিক দলের সদস্য ভারতীয় বংশোদ্ভূত কমলা হ্যারিস। এই দলের প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী জো বিডেন নির্বাচনে নিজের সঙ্গী হিসেবে তিনি বেছে নিলেন অ-শ্বেতাঙ্গ এবং প্রথম ভারতীয় বংশোদ্ভূত কমলা হ্যারিসকে।

এবার ডোনাল্ড ট্রাম্পকে হারানোর জন্য যৌথভাবে লড়াই করবেন এই দু’জন। দক্ষিণ এশিয়ার বংশোদ্ভূত অ-শ্বেতাঙ্গ কোনও ব্যক্তি এই প্রথমবার আমেরিকার ভাইস প্রেসিডেন্ট পদের জন্য লড়াই করছেন।

তবে একটা সময় কমলার মার্কিন প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী হওয়ার সম্ভাবনা ছিল। কিন্তু দলের অভ্যন্তরেই জো বিডেনের কাছে হেরে যান তিনি। তাঁদের মধ্যে একাধিকবার মতপার্থক্যও হয়েছে। কিন্তু শেষ পর্যন্ত ট্রাম্পকে সরানোর জন্য তারা একসঙ্গেই লড়াই করবেন।

আমেরিকার ভারতীয়দের মধ্যে ডোনাল্ড ট্রাম্প অত্যন্ত জনপ্রিয়। ভারতীয় বংশোদ্ভূতদের মধ্যে ট্রাম্পের এই জনপ্রিয়তাকে খর্ব করার জন্যই কমলাকে বেছেছেন বিডেন।

এছাড়াও আমেরিকাতে সম্প্রতি শ্বেতাঙ্গ বনাম কৃষ্ণাঙ্গ লড়াই নিয়ে প্রচুর সমস্যা হয়েছে। এই পরিস্থিতিতে একজন অশ্বেতাঙ্গকে আমেরিকার ভাইস প্রেসিডেন্ট এর মত উচ্চপদের প্রার্থী করে কৃষ্ণাঙ্গদের মন পাওয়ার চেষ্টা করল ডেমোক্রেটিক দল, বলে মনে করছে ওয়াকিবহাল মহল।

জামাইকান ও ভারতীয় বাবা-মা’র সন্তান কমলা ২০১৭ সালে প্রথম অশ্বেতাঙ্গ মহিলা সেনেটর হিসেবে ক্যালিফোর্নিয়া থেকে নির্বাচিত হন। তার আগে তিনি সানফ্রান্সিস্কোর ডিস্ট্রিক্ট অ্যাটর্নি ও ক্যালিফর্নিয়ার অ্যাটর্নি জেনারেল পদে ছিলেন। তিনি প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের অন্যতম সমালোচক। এবার রিপাবলিকান দলের বিরুদ্ধে শক্ত লড়াই করবেন কমলা এরকমটাই মনে করা হচ্ছে।

রিপাবলিকান দলের তরফ থেকে এখনও পর্যন্ত ডোনাল্ড ট্রাম্পকে প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী হিসাবে প্রচার করা হচ্ছে। ফলে প্রচারে কমলা যে ডোনাল্ড ট্রাম্পের বিরুদ্ধে চড়া গলায় আওয়াজ তুলবেন একথা বলাই বাহুল্য।

Related Articles

Back to top button