সব খবর সবার আগে।

‘এখানে আমার নিজের কেউ নেই’, আফগানিস্তান থেকে ভিডিও কলে কথা বলতে গিয়ে কেঁদে ভাসালেন বেহালার মেয়ে

তালিবান দখল করা আফগানিস্তানে আটকে রয়েছেন বেহালা সখেরবাজারের মেয়ে। আর এদিকে বাড়িতে উৎকণ্ঠার মধ্যে দিন কাটছে তাঁর মা-বাবার। মেয়েকে কীভাবে দেশে ফিরিয়ে আনবেন, এখন সেটাই সবসময় ভেবে চলেছেন বৃদ্ধ দম্পতি। মেয়েকে ফিরে পেতে কেন্দ্রের দ্বারস্থ হচ্ছেন মা-বাবা।

বেহালা সখেরবাজারের বাসিন্দা সঙ্ঘমিত্রা দফাদার নামের ওই মহিলা ২০০২ সালে নার্সিংয়ের কাজে আফগানিস্তান যান। এরপর থেকে কর্মসূত্রে সেখানেই থেকে গিয়েছেন তিনি। তালিবান কাবুল দখলের পর রীতিমতো ভেঙে পড়েছে এই বাঙালি কন্যা। গৃহবন্দি হয়ে রয়েছেন। মা-বাবার সঙ্গে যোগাযোগের একমাত্র সূত্র হল ভিডিও কলিং।

আরও পড়ুন- আফগানিস্তানে স্বমহিমায় তালিবান, কান্দাহার-হেরাতের ভারতীয় দূতাবাসে লুটপাট, হাতানো হল গোপন নথিপত্রও

ভিডিও কলে সঙ্ঘমিত্রা বলেন, “অত্যন্ত আতঙ্কে রয়েছি। বোঝা যাচ্ছে না কখন কী হবে। বাড়ি থেকে তো বেরোতে পারছি না। যেখানে কাজ করি সব বন্ধ। বাড়িতে আটতে রয়েছি। ফেরার তো খুবই ইচ্ছা। আমি এখানে একেবারে বন্দি। আমার এখানে কেউ নেই। আমার এখানে নিজের কেউ নেই। আমি চাই নিজের দেশে ফেরত যেতে। আমার মা-বাবার কাছে ফেরত যেতে। আমি বুঝতেই পারছি না কাকে যোগাযোগ করব। কী করব। কাকে বলব বুঝতেই পারছি না। দু’টো বাচ্চা নিয়ে আমি একা পড়ে রয়েছি এখানে”।

সঙ্ঘমিত্রার বাবা বলেন, “তিনটে মানুষ একেবারে একা। ফোনে তো বলছে ওদের অবস্থা একেবারে বন্দির মতো। কোথাও যেতে পারছে না। তালিবানকে কোনও ভরসা নেই। বাইরে বেরোলেই কী করবে কেউ জানে না। ওদের অতীত রেকর্ড তো ভয়ঙ্কর। খুব ভয় পাচ্ছি। ওরা পশুর সমান”।

অন্যদিকে সঙ্ঘমিত্রার মা বলেন, “উঠতে বসতে খালি ভাবছি কী হবে। ওর বাবা অসুস্থ। ৮৪ বছর বয়স। ওর সামনে নিজের উৎকন্ঠাটাও চেপে রাখতে হচ্ছে। ওরা খালি বলছে ‘আমাদের নিয়ে যাওয়ার ব্যবস্থা কর। ভিসা তো তৈরি। কিন্তু ফিরবে কী করে। কাবুলেই তো যেতে পারবে না।’ রেশন তুলে ঘর বন্ধ করে সব বসে আছে ও দেশে। বেরোবার উপায় নেই”।

আরও পড়ুন- ‘আতঙ্ক দিয়ে তৈরি সাম্রাজ্য বেশিদিন স্থায়ী হয় না’, পরোক্ষভাবে তালিবানদের বার্তা মোদীর

কাজের খোঁজে বাংলা থেকে একাধিক মানুষ পাড়ি দিয়েছে সুদূর আফগানিস্তানে। সুরক্ষিত ভবিষ্যতের খোঁজে সে দেশে গেলেও গো মাসে থেকেই তাদের শান্তিতে বিঘ্ন ঘটে,। আফগানিস্তানে শুরু হয় তালিবান হামলা। একের পর এক প্রদেশ দখল করার গত রবিবার কাবুল দখলের মাধ্যমে কার্যত গোটা আফগানিস্তানই দখল করে নেয় তালিবানরা। হঠাৎ করেই পাল্টে যায় সেখানকার মানুষের জীবন। এখন সকল ভারতীয়ই চাইছেন দ্রুত যে করেই হোক দেশে ফিরতে।

You might also like
Comments
Loading...