সব খবর সবার আগে।

করোনা বিধি শিকেয় তুলে ঘাটে ঘাটে তর্পণের ভিড়, সামাজিক দূরত্ব উধাও

আজ মহালয়া পিতৃ পক্ষের অবসান এবং দেবীপক্ষের সূচনা। প্রথমে আজকের দিনেই পূর্বপুরুষের উদ্দেশ্যে তর্পণ করা হয়। শহরের প্রতিটি ঘাটে তাই শয়ে শয় মানুষ হাজির হয়েছেন পূর্বপুরুষের শান্তির উদ্দেশ্যে তর্পণ করার জন্যই। শহরের ঘাটগুলোতে শুরু থেকেই কড়া নিরাপত্তায় মরে ফেলেছিল পুলিশ প্রশাসন।

কিন্তু এত কড়া নিরাপত্তায় মাঝেও করোনা পরিস্থিতিতে সামাজিক সচেতনতা একেবারেই নেই বললেই চলে। কারো মুখেই মাস্ক নেই, পাশাপাশি সামাজিক দূরত্ব বিধি শিকে তুলে একেবারে ভিড় করেই চলছে তর্পণ। প্রশাসনের তরফে বারবার মাইকিং করা হলেও কোনো কাজ হয়নি।

পাশাপাশি ভিড় নিয়ন্ত্রণের জন্য কোনরকম উদ্যোগ দেখা যায়নি প্রশাসনের পক্ষ থেকে। শুরু থেকেই এই তর্পণ ঘিরে কলকাতা পুলিশ যথেষ্ট সতর্ক ছিল।গঙ্গা লাগোয়া পথে পণ্যবাহী যান চলাচল বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। বিকাল ৪ টা পর্যন্ত বন্ধ থাকবে পণ্যবাহী যান চলাচল।বিপর্জয় মোকাবিলা দল ও প্রস্তুত ছিল। এমনকি বিপদজনক অংশে ভাসমান বল দিয়ে মার্কিং করা হয়।

প্রশাসনের তরফে একাধিকবার জানানো হয়,মাস্ক পরতে ও সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে। কিন্তু বাগবাজার থেকে বাবুঘাট সর্বত্র একই ছবি।

কলকাতা পুরসভা থেকে এবছর শুরু থেকেই জানানো হয় অন্তত ছ’ ফুট দূরত্ব মেনে যাতে তর্পণ করা হয়। সেই বার্তা প্রশাসনের তরফ থেকেও দেওয়া হয়েছিল। গত দু’বছর ধরে পরিস্থিতি একেবারেই আলাদা। করোনা পরিস্থিতি জন্যও সতর্ক প্রশাসন ও। কিন্তু এত সতর্কতার মাঝেও মাস্ক , শারীরিক দূরত্ব বিধি উধাও। স্বাভাবিকভাবেই প্রশ্ন উঠছে উৎসবের মরশুমে শুরুতেই এমন অসচেতনতা ছবি দেখা গেলে গোটা পুজোয় কী হতে চলেছে।

_taboola.push({mode:'thumbnails-a', container:'taboola-below-article', placement:'below-article', target_type: 'mix'}); window._taboola = window._taboola || []; _taboola.push({mode:'thumbnails-rr', container:'taboola-below-article-second', placement:'below-article-2nd', target_type: 'mix'});
You might also like
Comments
Loading...