সব খবর সবার আগে।

আইন ভঙ্গ করে মাত্র ১৪ বছরের কিশোরীকে বিয়ে করলেন পঞ্চাশোর্ধ পাক সাংসদ

পাকিস্তান তথা মুসলিম সম্প্রদায়ে এখনও যে পুরনো প্রথা রয়ে গিয়েছে তার প্রমাণ মিলল আরও একবার। ১৪ বছরের কিশোরীকে বিয়ে করলেন প্রায় ৫০ বছর বয়সী পাক-সাংসদ। এমনটাই অভিযোগ উঠল মৌলানা সালাহুদ্দিন আয়ুবি নামের ওই সাংসদের বিরুদ্ধে। পাকিস্তানে মেয়েদের বিয়ের বয়স ১৬ বছর, সেখানে আইন ভঙ্গ করে মাত্র ১৪ বছরের একজন কিশোরীকে বিয়ের করা নিতান্তই অপরাধ। আর সেই কাজের সঙ্গেই যুক্ত কিনা খোদ সাংসদ।

এই ঘটনার জেরে বালুচিস্তানের চিত্রাল এলাকার একটি সমাজসেবী সংগঠন পুলিশের কাছে অভিযোগ দায়ের করে। ইতিমধ্যেই পুলিশ এই ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে। তারপরই পুলিশ ওই কিশোরীর বাড়িতে গেলে বিয়ের কথা অস্বীকার করে কিশোরীর বাবা। এফিডেভিটও দাখিল করেন ওই কিশোরীর বাবা।

জানা গিয়েছে, ওই নাবালিকা স্থানীয় একটি সরকারি বালিকা বিদ্যালয়ের ছাত্রী। আর ঐ সাংসদ ২০১৮ সাল থেকে সংসদের প্রতিনিধি করছেন।

_taboola.push({mode:'thumbnails-a', container:'taboola-below-article', placement:'below-article', target_type: 'mix'}); window._taboola = window._taboola || []; _taboola.push({mode:'thumbnails-rr', container:'taboola-below-article-second', placement:'below-article-2nd', target_type: 'mix'});
You might also like
Comments
Loading...