সব খবর সবার আগে।

শুক্রবারের মধ্যেই প্যাংগং সো থেকে সরে যাবে ভারত-চীন সেনা, খানিকটা স্বস্তিতে ভারতীয় সেনা

আলোচনা মতোই কাজ হচ্ছে। ধীরে ধীরে প্যাংগং সো লেক থেকে সরে যাচ্ছে ভারত-চীন সেনা। উপগ্রহ চিত্রে লেকের উত্তর তিরে ফিঙ্গার ৮-এর শৃঙ্গের দিকে চীনের ভারী গাড়িগুলি ক্রমশ সরে যাওয়ার চিত্র ধরা পড়েছে। এই প্রক্রিয়া আগামী ১৯শে ফেব্রুয়ারি অর্থাৎ আগামী শুক্রবারের মধ্যেই শেষ হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

এর আগেই দুই দেশের শীর্ষস্তরে আলোচনার মাধ্যমে স্থির হয় যে প্যাংগং লেক থেকে সেনা সরিয়ে নেবে ভারত ও চীন, দু’দেশই। সেই অনুযায়ী এই প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে গত বুধবার থেকে। গোটা প্রক্রিয়া শেষ হতে মোটামুটি দশদিন সময় লাগবে বলে ধরা হয়েছে। এই সম্পূর্ণ প্রক্রিয়ার মূল্যায়ন করছেন ভারতের বিদেশমন্ত্রক। এই বিষয়ে সন্তোষ প্রকাশ করেছেন ভারতীয় সেনার উচ্চপদস্থ আধিকারিকরাও। তাদের মতে, পিপলস লিবারেশন আর্মি নির্ধারিত সূচি মেনেই দ্রুত সরে যাচ্ছে।

গত বছর এপ্রিল মাসে যেখান পর্যন্ত দু’দেশের সেনা অবস্থান করছিল, ততটা পর্যন্ত পিছিয়ে যাওয়ার কথা হয়েছে ভারত ও চীনের মধ্যে। অর্থাৎ, উত্তর তিরে ফিঙ্গার ৩-এর ঘাঁটি পর্যন্ত সরে আসবে ভারতীয় সেনা  আর অদিকে ফিঙ্গার ৮-এর পূর্বে স্রিজাপ সেক্টরে ফেরত যাবে চীন সেনা। একইভাবে দক্ষিণে ভারতীয় ও চীন সেনা চুশুল ও মলডোতে ফিরে যাবে। ফিঙ্গার ৪ থেকে ৮ পর্যন্ত দুই দেশই নিজেদের সামরিক বাহিনী তুলে নেবে, এমনই ঠিক হয়েছে।

প্রতিরক্ষা মন্ত্রকের সূত্র অনুযায়ী, লাদাখ সেক্টরে ১,৫৯৭ কিলোমিটারের প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখা বরাবর শান্তি ও সুস্থিতি নিশ্চিত করতেই প্যাংগং লেক সো লেক থেকে সেনা সরানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। সেনা সরানো হয়ে গেলে গোগরা হট স্প্রিং ও ডেপস্যাং ভ্যালি নিয়ে আলোচনায় বসবে ভারত ও চীন।

প্যাংগং সো-র দক্ষিণ তীর থেকে চীনের মূল যুদ্ধ ট্যাঙ্কের পাশাপাশি ভারতের সমরাস্ত্র সরিয়ে নেওয়ার স্বপক্ষে প্রমাণ মিলেছে। তবে আরও ভিতরের দিকেএ এলাকায় চীনা বাহিনী বা সমরাস্ত্র পিছিয়ে নেওয়ার কোনও প্রমাণ এখনও মেলেনি। উপগ্রহ চিত্রের মাধ্যমে সেই প্রক্রিয়ার উপর সমানে নজরদারি চালানো হচ্ছে।

_taboola.push({mode:'thumbnails-a', container:'taboola-below-article', placement:'below-article', target_type: 'mix'}); window._taboola = window._taboola || []; _taboola.push({mode:'thumbnails-rr', container:'taboola-below-article-second', placement:'below-article-2nd', target_type: 'mix'});
You might also like
Comments
Loading...