সব খবর সবার আগে।

ধুঁকছে এয়ার ইন্ডিয়া, তাই কিছু কর্মীকে পাঁচ বছরের জন্য কর্মবিরতিতে পাঠাবে সংস্থা

এয়ার ইন্ডিয়া এখন প্রায় ধুকিয়ে ধুকিয়ে হাঁটছে। তাই কিছু কর্মীকে বিনা বেতনে কর্মবিরতিতে পাঠানোর সিদ্ধান্ত নিল বিমান সংস্থাটি। ছয় মাস থেকে দুই বছর অবধি চলতে পারে এই বিরতি। প্রয়োজনে পাঁচ বছর অবধিও গড়াতে পারে এই ছুটির মেয়াদ। এমনই সরকারি নির্দেশ জারি করেছে এয়ার ইন্ডিয়া। ব্যক্তিগত কারণ দেখিয়ে কেউ এই ছুটি নিতে পারে। তবে সমস্ত স্থায়ী কর্মীদের জন্য এই প্রকল্প প্রযোজ্য হবে।

এই প্রকল্প অনুযায়ী এয়ারলাইন্স যে কোনও কর্মীকে কিছু মাপকাঠির ভিত্তিতে বিচার করে ছুটিতে পাঠিয়ে দিতে পারে সংস্থা। যেমন সেই কর্মীর আগের পারফরমেন্স, স্বাস্থ্য, কর্মক্ষমতা, প্রয়োজনীয়তা, দক্ষতা, আগে ছুটি নেওয়ার রেকর্ড ইত্যাদি।

প্রতিটি হেডকোয়ার্টার্সে ডিপার্টমেন্টাল হেড ও রিজিওনাল ডিরেক্টররা সেই কর্মীদের চিহ্নিত করবেন যাদের বিনা বেতনে ছুটিতে পাঠানো হবে। সেটির জন্য প্রতিটি রিজিওনাল ডিরেক্টরের নেতৃত্বে একটি কমিটি গঠন করা হবে। যেখানে জেনারেল ম্যানেজার (পার্সোনেল), জেনারেল ম্যানেজার (ফিনান্স) ও সংশ্লিষ্ট ডিপার্টমেন্টাল হেড থাকবে।

সমস্ত রেকর্ড ঘেঁটে কর্মীদের নির্বাচন করা হবে, তারপর তাদের নাম সিএমডি-র কাছে শিলমোহরের জন্য পাঠানো হবে।

অন্যদিকে এয়ার ইন্ডিয়া জানিয়েছে আগামী ২০ জুলাই তাদের অফিস পুরো খুলে যাবে। তখন কেউ ছুটি নিতে চাইলে তাঁকে আলাদা করে আবেদন করতে হবে। তবে গর্ভবতী, বয়স্ক ও কনটেনমেন্ট জোনে থাকা বাসিন্দারা এই নিয়মের আওতায় পড়বেন না।

_taboola.push({mode:'thumbnails-a', container:'taboola-below-article', placement:'below-article', target_type: 'mix'}); window._taboola = window._taboola || []; _taboola.push({mode:'thumbnails-rr', container:'taboola-below-article-second', placement:'below-article-2nd', target_type: 'mix'});
You might also like
Leave a Comment