সব খবর সবার আগে।

নিলামে উঠছে বাংলা মিডিয়াম স্কুল, ভবিষ্যৎ অন্ধকার স্কুল পড়ুয়াদের, মুখ্যমন্ত্রীর কাছে আবেদন অভিভাবক-পড়ুয়াদের

নানান জনপ্রিয় ব্যক্তির কোনও পোশাক বা কোনও দামী জিনিস বা পারতপক্ষে কোনও কোম্পানি বা বাড়ি নিলামে ওঠার কথা তো মাঝেমধ্যেই শোনা যায়। কিন্তু স্কুল নিলাম, তেমনটা কী আগে কেউ কখনও শুনেছেন? কেউ হয়ত ভাবতেই পারছেন না যে এমনটা হতে পারে। কিন্তু এমনটা হচ্ছে, তাও রাজধানী দিল্লিতে।

নয়াদিল্লির চিত্তরঞ্জন পার্ক বাঙালি এলাকা বলেই পরিচিত। কারণ এখানে বসবাস করেন বাঙালিরাই। সেই এলাকাতেই একটি আস্ত বাংলা মিডিয়াম স্কুল নিলামে উঠতে চলেছে, এমনটাই জানান গেল। এই খবর সামনে আসতে বেশ হইচই পড়ে গিয়েছে।

স্থানীয় সূত্রে খবর অনুযায়ী, প্রায় ৩৬ বছর আগে এই এলাকায় দুই একরেরও বেশি জমিতে তৈরি হয় ‘‌রাইসিনা বেঙ্গলি স্কুল(সেকেন্ডারি)’‌। গোটা উত্তর ভারতের অন্যতম বাংলা মাধ্যম স্কুল এটি। এই স্কুলে প্রথম শ্রেণি থেকে দ্বাদশ শ্রেণি পর্যন্ত পড়ানো হয়। কিন্তু এই স্কুলই এখন নিলামে তোলার ব্যবস্থা করা হচ্ছে। যার ফলে এই স্কুলের পাঠরত ৯০০ পড়ুয়ার ভবিষ্যৎ এখন অন্ধকারে।

কিন্তু কেন নিলামে উঠছে এই স্কুল?

এই বিষয়ে রাইসিনা বেঙ্গলি স্কুলের কর্মী চঞ্চল চট্টোপাধ্যায় বলেন, “২০০৫ সালে একটি রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্ক থেকে ২ কোটি টাকা ঋণ নিয়ে ছিল এই স্কুল কর্তৃপক্ষ। যা সুদে–আসলে এখন ৮ কোটি টাকায় গিয়ে পৌঁছেছে। এই টাকা শোধ করা যায়নি। তাই ঋণ আদায়কারী ট্রাইবুনাল স্কুল–সহ স্কুলের সম্পত্তি নিলামে তোলার নির্দেশ দেয়। আজ ১৪ জানুয়ারি হবে অনলাইন নিলাম”।

এমন বিপদে পড়ে নয়াদিল্লি সরকারের শিক্ষা দফতর থেকে শুরু করে দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরীওয়াল ও বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কাছে আবেদন জানান স্কুলের সঙ্গে জড়িয়ে থাকা সকলেই।

কিন্তু সূত্রের খবর অনুযায়ী, কোনও পক্ষ থেকেই তেমন কোনও সাড়া মেলেনি। তবে তারা এখনও আশাবাদী যে স্কুল নিলামে ওঠার আগে দিলির মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে কথা অবশ্যই বলবেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী। তাতে হয়ত স্কুল নিলাম আটকে যাবে বলে আশা তাদের।

You might also like
Comments
Loading...