দেশ

কথা রাখলেন মোদী, বিজয় মাল্য, নীরব মোদীর মতো ঋণখেলাপিদের সম্পদ বিক্রি করে ১৩ হাজার কোটি টাকা উদ্ধার কেন্দ্র সরকারের

কথা রাখলেন প্রধানমন্ত্রী। নানান ঋণখেলাপিদের সম্পদ বিক্রি করে বেশ কয়েক হাজার কোটি টাকা উদ্ধার করল ব্যাঙ্ক। আজ, সোমবার লোকসভায় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ জানান যে নীরব মোদী, বিজয় মাল্যদের মতো নানান ঋণখেলাপিদের সম্পত্তি বিক্রি করে ১৩,১০৯ কোটি টাকা উদ্ধার করেছে ব্যাঙ্কগুলি।

একটি প্রশ্নের উত্তরে নির্মলা সীতারমণ এও জানান যে গত সাত বছরে এই অনাদায়ী ঋণ বাবদ প্রায় ৫ লক্ষ ৪৯ হাজার কোটি টাকা উদ্ধার করতে সক্ষম হয়েছে নানান ব্যাঙ্ক।

দেশের নানান ব্যাঙ্কে নানান ব্যবসায়ী ও শিল্পপতিদের হাজার হাজার কোটি টাকা বকেয়া পড়ে রয়েছে। এই ঋণখেলাপিদের অনেকেই আবার বিদেশে পালিয়ে গিয়েছে। আর এদিকে মুক্ত অর্থনীতির জেরে ব্যাঙ্কে আমানতের উপর সুদ প্রতি বছরই কমে যাচ্ছে।

এই সুদ কমে যাওয়ার ফলে দেশবাসী বিশেষত আমানতের সুদের উপর নির্ভরশীল অবসরপ্রাপ্ত মানুষদের উদ্বেগ ক্রমেই বাড়ছে। এ নিয়ে একদিকে যেমন মানুষের মধ্যে অসহয়তা বেড়েছে, তেমনিই আবার সরকারের প্রতি ক্ষোভও বেড়েছে বলে ধারণা সংশ্লিষ্ট মহলের।

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন বিদেশ থেকে ‘কালা ধন’ ফিরিয়ে আনবেন। মেহুল চোক্সী, নীরব মোদী, বিজয় মাল্যদের মতো আরও ঋণখেলাপি রয়েছেন যাঁদের সম্মিলিত অনাদায়ী ঋণের পরিমাণ প্রায় কয়েক লক্ষ কোটি।

এই অনাদায়ী ঋণ যেমন একদিকে ব্যাঙ্কগুলিকে দুর্বল করেছে, তেমনই সাধারণ দেশবাসীর মনে শঙ্কা তৈরি করেছে। এর পাশাপাশি অনেকেরই ধারণা, ব্যাঙ্কিং ব্যবস্থায় সংস্কারের ফলে আগামী দিনে ব্যাঙ্কের স্বাস্থ্য কতটা ফিরবে তা এখনই নিশ্চিত বলা না গেলেও সাধারণ মানুষের আমানতের সুরক্ষা অনেকটা অনিশ্চিত হয়ে পড়ছে।

Related Articles

Back to top button