সব খবর সবার আগে।

৫ মাসে ৩১ বার করোনা পজেটিভ রাজস্থানের মহিলা! হতবাক চিকিৎসক মহল! 

করোনা থেকে প্রথমবার সুস্থ হয়ে ওঠার পর দ্বিতীয়বার করোনা আক্রান্ত হয়েছেন অনেকেই। কিন্তু তা বলে ৩১ বার? এও সম্ভব? হ্যাঁ, এমন ঘটনাই ঘটেছে রাজস্থানে এক মহিলার সঙ্গে। পাঁচ মাসে মোট ৩১ বার তাঁর করোনার রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। বর্তমানে ওই মহিলার চিকিত্সা চলছে রাজস্থানের ভরতপুরের RBM হাসপাতালে।

উল্লেখ্য, ভরতপুরের আপনা ঘর আশ্রম-এ ওই মহিলা এসেছিলেন বাজহেরা গ্রাম থেকে। এই ঘটনার পর আশ্রম কর্তৃপক্ষ এখন ওই মহিলাকে জয়পুরের SMS হাসপাতালে পাঠানোর পরিকল্পনা করছেন। সারদা নামে রাজস্থানের বাসিন্দা ওই মহিলার প্রথমবার করোনা টেস্ট হয় গত বছর ২০ অগাস্ট মাসে। তার রিপোর্ট পজিটিভ আসে। তার পরেই তাঁকে ভর্তি করা হয়  থেকে RBM  হাসপাতালে। সেখানে চিকিত্সা করিয়ে সারদাকে আশ্রমে ফিরিয়ে আনা হয়।

আপনা ঘর আশ্রম-র প্রতিষ্ঠাতা ডা বি এম  ভরদ্বাজ সংবাদমাধ্যমে জানান, হাসপাতাল থেকে আশ্রমে ফেরার পর থেকে মোট ৩১ বার করোনা পরীক্ষা হয়েছে সারদার। আর অদ্ভুতভাবে প্রতিটি টেস্টেই করোনা পজিটিভ এসেছে। তবে তাঁর মধ্যে চূড়ান্ত শারীরিক কষ্ট বা অন্য কিছু তেমন কোন‌ও সমস্যা নেই। দিব্য বেশ ভালোই রয়েছেন সারদা।

বর্তমানে ভরতপুরের হাসপাতালগুলিতে কোনও করোনা পজিটিভ রোগী নেই। কিন্তু সারদা করোনা পজিটিভ হওয়ার পর শোরগোল তৈরি হয়েছে জেলা স্বাস্থ্য মহলে। সাধারণভাবে কোনও করোনা রোগীকে ১০-১৪ জনকে কোয়ারেন্টিনে রাখা হয়। তার পর তিনি কোভিড নেগেটিভ হলেই তাঁকে ছেড়ে দেওয়া হয়। কিন্তু সারদার ক্ষেত্রে আশ্রমে যতবারই করোনা টেস্ট করানো হয়েছে ততবারই রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে।

_taboola.push({mode:'thumbnails-a', container:'taboola-below-article', placement:'below-article', target_type: 'mix'}); window._taboola = window._taboola || []; _taboola.push({mode:'thumbnails-rr', container:'taboola-below-article-second', placement:'below-article-2nd', target_type: 'mix'});
You might also like
Comments
Loading...