দেশ

“গগনযান” মিশনের জন্য পুরোদমে কাজ শুরু ইসরোতে। বেঁছে নেওয়া হলো প্রাথমিক মহাকাশচারীদের৷

সদ্য ইসরোর চন্দ্রযান – ২ মিশন আংশিকভাবে সফল হয়েছে। চন্দ্রযান – ২ এর অর্বিটার কাজ করলেও চন্দ্রপৃষ্ঠের অবতরণের ঠিক আগেই ইসরোর কন্ট্রোল রুমের সঙ্গে যোগাযোগ বিছিন্ন হয়ে যায় চন্দ্রযান – ২ এর বিক্রম ল্যান্ডারের। এই আংশিকভাবে সফল হওয়া মিশন চন্দ্রযান – ২ এর পরই এবারে “গগনযান” অভিযান নিয়ে জোরকদমে কাজ শুরু করে দিলো ইসরো।

 

২০১৮ সালে স্বাধীনতা দিবসে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ঘোষণা করেছিলেন এই “গগনযান” অভিযানের। এই মিশনে প্রথমবার তিনজন মহাকাশচারীকে মহাকাশে পাঠাতে চলেছে ইসরো৷ আর চুপিচুপি সেই অভিযাণের কাজই এবারে জোরকদমে শুরু করে দিলো ইসরো৷ ইতিমধ্যেই এই অভিযানের জন্য ভারতীয় বায়ুসেনার তরফে বাছাই করে নেওয়া হয়েছে প্রাথমিক স্তরের ২৫ জন বায়ুসেনা পাইলটকে।

ইসরোর পক্ষ থেকে আগেই জানানো হয়েছিল যে, “গগনযান” অভিযানের জন্য মহাকাশচারী বাছাই করা হবে ভারতীয় বায়ুসেনা থেকেই। আর তাদের বাছাই করবে ভারতীয় বায়ুসেনাই৷ সেই মতোই ভারতীয় বায়ুসেনার তরফে প্রাথমিক স্তরে বাছাই করা হয়েছে ২৫ জন মহাকাশচারীকে। তাদের মানসিক সহ নানান শারীরিক পরীক্ষাও করা হয়েছে। নির্বাচিত মহাকাচারীদের এরপর আগামী নভেম্বর মাসেই পাঠানো হবে রাশিয়ায় প্রশিক্ষণের জন্য। সেখানেই ধীরে ধীরে বাছাই করে এই ২৫ জন থেকে ৩ জন মহাকাশচারীকে চূড়ান্ত ভাবে বেঁছে নেওয়া হবে “গগনযান” অভিযানের জন্য।

ইসরো সূত্রে খবর আগামী ২০২২ সালে নির্বাচিত তিনজন মহাকাশচরীকে নিয়ে মহাকাশের দিকে রওনা দেবে ভারতের “গগনযান”। ভারতের ইতিহাসে যুক্ত হবে নয়া অধ্যায়ের। অবশ্য তার পূর্বে আগামী ২০২০ এর ডিসেম্বর এবং ২০২১ সালের জুলাই মাসে মানুষ ছাড়াই যান পাঠিয়ে সমস্ত জিনিস পরীক্ষা করে নেবেন ইসরোর বিজ্ঞানীরা।

Related Articles

Back to top button