দেশ

দীর্ঘ প্রতীক্ষার অবসান! দুর্গাপুজোর সময়ই দেশজুড়ে ৫জি পরিষেবার সূচনা করতে চলেছেন প্রধানমন্ত্রী মোদী

অবশেষে শেষ হতে চলেছে অপেক্ষা। উৎসবের সময়ই দেশবাসী পাবে ৫ জি পরিষেবার সুবিধা। ১লা অক্টোবর একটি অনুষ্ঠান থেকে ৫ জি পরিষেবার সূচনা করবেন নরেন্দ্র মোদী। আজ, শনিবার ন্যাশানাল ব্রডব্র্যান্ড মিশনের তরফে টুইট করে এমনটাই জানানো হয়েছে।

ন্যাশানাল ব্রডব্র্যান্ড মিশনের তরফে জানানো হয়েছে, “ভারতের ডিজিটাল ট্রান্সফরমেশন ও সংযোগ এক উচ্চতায় নিয়ে গিয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এশিয়ার সবথেকে বড় টেকনোলজি প্রদর্শনী ইন্ডিয় মোবাইল কংগ্রেসে ভারতে ৫জি পরিষেবা চালু করবেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী”।

প্রসঙ্গত, এশিয়ার সবথেকে বড় টেলিকম, মিডিয়া ও প্রযুক্তি ফোরাম হল ইন্ডিয়া মোবাইল কংগ্রেস। টেলিকমিউনিকেশন বিভাগ ও সেলুলার অপারেটরস অ্যাসোসিয়েশন অফ ইন্ডিয়া একত্রভাবে এই প্রদর্শনীর আয়োজন করবে বলে জানা গিয়েছে। এই প্রদর্শনী থেকেই দেশে প্রথম ৫ জি পরিষেবার সূচনা করছেন প্রধানমন্ত্রী।

গত সপ্তাহেই কমিউনিকেশন, ইলেকট্রনিক্স ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী অশ্বিনী বৈষ্ণব জানান যে দেশের প্রায় ৮০ শতাংশ ৫ জি পরিষেবা দেওয়ার লক্ষ্যমাত্রা নিয়েছে সরকার। গত বুধবার একটি অনুষ্ঠানে তিনি বলেন, “৫ জি এর যাত্রা খুব উত্তেজনাপূর্ণ হতে চলেছে। এক্ষেত্রে উল্লেখ্য, একাধিক দেশ ৪০ থেকে ৫০ শতাংশ কভারেজের জন্য বহু বছর সময় নিয়েছে। কিন্তু আমরা কম সময়ের মধ্যে আরও বেশি কভারেজের কথা বলছি। সরকার কম সময়ে ৮০ শতাংশ কভারেজের লক্ষ্যমাত্রা দিয়েছে”।

এদিকে, গোটা দেশে ৫ জি পরিষেবা দেওয়ার জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছে জিও ও এয়ারটেলও। জিও-র তরফে জানানো হয়েছে যে দীপাবলির সময়ই ৫ জি পরিষেবা শুরু করবে তারা।

বিশেষজ্ঞদের মতে, দেশে ৫ জি পরিষেবা শুরু হলে অনেক সুবিধা হবে। সম্প্রতি মোবাইল নেটওয়ার্ক অপারেটরের প্রতিনিধিত্বকারী একটি গ্লোবাল ইন্ডাস্ট্রি সংস্থার রিপোর্টে দেখা গিয়েছে যে ২০২৩ থেকে ২০৪০ সালের মধ্যে ৫ জি পরিষেবার জন্য ভারতীয় অর্থনীতিতে ৩৬ লক্ষ কোটি টাকার লাভ হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

Related Articles

Back to top button