দেশ

যাত্রী রোজা পালন করছেন, জানতে পেরেই ইফতারের ব্যবস্থা রেলকর্মীর, এল প্লেটভর্তি ফল, ভারতীয় রেলের উদ্যোগকে সাধুবাদ নেটিজেনদের

ধানবাদ থেকে হাওড়াগামী শতাব্দী এক্সপ্রেসে উঠেছিলেন শাহনওয়াজ আখতার। সকলকে দেওয়া হচ্ছিল সান্ধ্য জলখাবার। চা ও খাবার নিয়ে হাজির হন রেলকর্মী। কিন্তু শাহনওয়াজ প্যান্ট্রিকর্মীকে বলেন যাতে তাঁকে কিছুক্ষণ পর চা দেওয়া হয় কারণ তার উপবাস চলছে।

ওই রেলকর্মী বুঝতে পারেন যে যাত্রী রোজা রেখেছেন। আর তা নিশ্চিত হওয়ার পরই ঠিক সময়ে ইফতারের সময়ই রেলকর্মী রামজানের উপবাস ভাঙার উপযুক্ত খাবার নিয়ে এসে দেন শাহনওয়াজকে। যাত্রী দেখেন তাঁর জন্য এসেছে প্লেটভর্তি ফল ও অন্যান্য খাবার।

রেলকর্মীর এমন ব্যবহারে আপ্লুত হয়েছেন শাহনাওয়াজ। এই গোটা ঘটনাটি জানিয়ে তিনি একটি টুইট করেন। এই টুইটের মাধ্যমে তিনি ভারতীয় রেলকে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেছেন। এর পাশাপাশি খাবারের প্লেটের ছবিও জুড়ে দিয়েছেন তিনি।

এই টুইটটি পড়ে আবার রিটুইট করেন রেল প্রতিমন্ত্রী দর্শনা জারদোস। তিনি জানান যে শাহনাওয়াজের এই টুইট দেখে ভারতীয় রেল পরিবারের সকলেই খুশি হয়েছেন। একই সঙ্গে এটিকে কেন্দ্রীয় সরকারের সকলের জন্য সমান মনোভাব পোষণের নজির বলে উল্লেখ করেছেন তিনি। তাঁর কথায়, “এটি প্রধানমন্ত্রী মোদীর সবকা সাথ, সবকা বিকাশ এবং সবকা বিশ্বাস নীতির একটি সঠিক উদাহরণ”।

ভারতীয় রেলের এই উদ্যোগের প্রশংসা করেছেন নেটিজেনরাও। এই ঘটনাই তুলে এনেছে সম্প্রতি নবরাত্রিতে রেলের উদ্যোগে সাত্ত্বিক খাবার পরিবেশন করার প্রসঙ্গটিও। সেই সময় অনেকেই এর সমালোচনা করেছিলেন।

এবার রেলের এমন উদ্যোগের পর সেই সমালোচকদের আক্রমণ করেছেন অনেকই। রমজানের সময় এর আগেও ট্রেনের মধ্যে এভাবে ইফতারের ব্যবস্থা করা হয়েছিল বলে জানিয়েছেন অনেকে। আবার কেউ কেউ এমনও দাবী করেছেন যাতে সব ট্রেনেই এমন বিশেষ পরিষেবার ব্যবস্থা করা হয়।

Related Articles

Back to top button