সব খবর সবার আগে।

চার কেন্দ্রে উপনির্বাচনের জন্য রাজ্যে ২৭ কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী, অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে থাকছে কড়া নিরাপত্তা

দুর্গাপুজো মিটলেই ফের রাজ্যে ভোটের আবহ। চলতি মাসেই রয়েছে বাকি চার কেন্দ্রে উপনির্বাচন। এই কারণে রাজ্যে ফের আসছে কেন্দ্রীয় বাহিনী। ফের বাংলা কাঁপবে ভারী বুটের শব্দে। ভবানীপুর উপনির্বাচন ও আরও দুই কেন্দ্রে সাধারণ নির্বাচনের জন্য গত মাসেই রাজ্যে এসেছিল ১৫ কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী।

চলতি মাসের ৩০ তারিখই উপনির্বাচন রয়েছে দিনহাটা, গোসাবা, শান্তিপুর ও খড়দহ বিধানসভা কেন্দ্রে। এই কারণেই ফের রাজ্যে আসবে কেন্দ্রীয় বাহিনী। এই চার কেন্দ্রের জন্য আপাতত ২৭ কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী মোতায়েন করা হবে বলে নির্দেশ দিয়েছে নির্বাচন কমিশন। প্রত্যেক বুথ নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তায় মুড়ে ফেলা হবে। কোনওরকমের কোনও অপ্রীতিকর ঘটনা যাতে না ঘটে, সেদিকে কড়া নজর দেওয়ার জন্যই এই ব্যবস্থা।

জানা গিয়েছে, এবার এই কেন্দ্রীয় বাহিনীতে থাকবে ৯ কোম্পানি বিএসএফ, ৮ কোম্পানি সিআরপিএফ, ৫ কোম্পানি এসএসবি এবং বাকি সিআইএসএফ। তবে কোন কেন্দ্রের জন্য কতজন বাহিনী রাখা হবে, তা এখনও জানা যায়নি। সংশ্লিষ্ট জেলার নির্বাচনী আধিকারিকদের সঙ্গে আলোচনা করেই এই বিষয়ে কোনও সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে বলে জানা গিয়েছে। এও জানানো হয়েছে যে যদি প্রয়োজন পড়ে, তাহলে আরও কেন্দ্রীয় বাহিনী মোতায়েন করা হতে পারে।

এই চার কেন্দ্রে উপনির্বাচনের জন্য জোরকদমে কোমর বাঁধছে বিজেপি। কারণ রাজ্য রাজনীতিতে তারা কেবলই অপ্রাসঙ্গিক হয়ে পড়ছে। তবে এই চার কেন্দ্রের মধ্যে শান্তিপুর ও দিনহাটা বিজেপির জন্য সবথেকে সম্ভাবনাময় কেন্দ্র। কারণ একুশের নির্বাচনে এই দুই কেন্দ্র থেকেই বিজেপি জিতেছিল।

তবে গোসাবা ও খড়দহতেও হাল ছাড়তে রাজি নয় গেরুয়া শিবির। জোরদার টক্কর দিতে প্রস্তুত তারা। আগামী ৩০শে অক্টোবর রয়েছে এই চার কেন্দ্রে নির্বাচন। এরপরও ২রা নভেম্বর হবে ভোট গণনা। ৮ই অক্টোবরের মধ্যেই এই চার কেন্দ্রে মনোনয়ন জমা দিয়েছেন সমস্ত প্রার্থীরা।

_taboola.push({mode:'thumbnails-a', container:'taboola-below-article', placement:'below-article', target_type: 'mix'}); window._taboola = window._taboola || []; _taboola.push({mode:'thumbnails-rr', container:'taboola-below-article-second', placement:'below-article-2nd', target_type: 'mix'});
You might also like
Comments
Loading...