রাজ্য

বিমল গুরুংকে গ্রেফতারের দাবী, অন্যথায় হবে বড় আন্দোলন, ফের কী তবে উত্তপ্ত দার্জিলিং?

নভেম্বরের শীতের মধ্যেও পাহাড় কিন্তু যথেষ্ট উত্তপ্ত। ফের বিতর্কে জড়িয়েছেন গোর্খা জনমুক্তি মোর্চার সভাপতি বিমল গুরুং। গ্রেফতারির দাবী উঠল তাঁর বিরুদ্ধে। দায়ের হয়েছে এফআইআর। অনীত থাপার ভারতীয় গোর্খা প্রজাতান্ত্রিক মোর্চার তরফে দাকবি উঠেছে যে বিমল গুরুংকে গ্রেফতার না করা হলে আন্দোলনের পথে হাঁটবে তারা। তবে এদিকে বিমল গুরুং তাঁর দিকে ওঠা নানান অভিযোগ অস্বীকার করেছেন।

জানা গিয়েছে, পাহাড়ের তাকভর এলাকা দিয়ে বিমল গুরুংয়ের কনভয় যাচ্ছিল। সেই সময় স্কুটি নিয়ে যাচ্ছিলেন অনীত থাপার দলের কেন্দ্রীয় কমিটির নেতা দীনেশ থিংয়ের ছেলে নীতেন। অভিযোগ, নীতেন পাশ কাটিয়ে যাওয়ার পরই তাঁর পথ আটকায় বিমল গুরুংয়ের নেতা-কর্মীরা।

এরপর গাড়ি থেকে নেমে আসেন বিমল গুরুং। অভিযোগ, নীতেনকে বেশ মারধর করেন তিনি। গুরুংয়ের অনুগামীরাও বেশ মারধর করে নীতেনকে। কোনওক্রমে সে স্কুটি নিয়ে সোজা হাজির হয় দলীয় কার্যালয়ে। এই বিষয়টি জানাজানি হতেই উত্তেজনা ছড়ায় পাহাড়ে। দলীয় কর্মীরা নীতেনকে দার্জিলিং সদর হাসপাতালে নিয়ে যান। প্রাথমিক চিকিৎসার পর ছেড়ে দেওয়া হয় তাঁকে।

এরপরই দার্জিলিং সদর থানায় বিমল গুরুংয়ের নামে অভিযোগ দায়ের করা হয় অনীত থাপার দলের তরফে। হুঁশিয়ারি শানানো হয়েছে যে গুরুংকে গ্রেফতার না করা হলে আন্দোলন করবেন তারা।

ভারতীয় গোর্খা প্রজাতান্ত্রিক মোর্চার কেন্দ্রীয় কমিটির মুখপাত্র তথা যুবনেতা অলোক কান্ত থুলুংয়ের অভিযোগ, “শান্ত দার্জিলিংকে অশান্ত করতে বিমল গুরুং ফের সন্ত্রাসের রাজনীতি শুরু করতে চাইছেন। BGPM নেতাকে মারধর করে আদতে পাহাড়বাসীকে ভয় দেখাতে চাইছেন। বিমল গুরুংকে গ্রেফতার না করা হলে আন্দোলনের পথে হাঁটব”। তবে দলের ঘোষিত সিদ্ধান্তকে মনে করিয়ে তিনি এও বলেন যে তারা আন্দোলন করে পাহাড়ের জনজীবনকে বিপর্যস্ত করবেন না।

এদিকে, ঘনিষ্ঠ মহলে বিমল গুরুং জানিয়েছেন যে তিনি ওই নেতাকে স্পর্শই করেননি। দলের সাধারণ সম্পাদক রোশন গিরি বলেন, “সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন অভিযোগ। বিরোধী দলের ওই নেতা মোর্চার নেতা-কর্মীদের সঙ্গে দুর্ব্যবহার করেছিলেন। তবে মারধরের কোনও ঘটনা ঘটেনি”।

এরই মধ্যে পাহাড়ের এই ঘটনার একটি ভিডিও বেশ ভাইরাল হয়েছে। তাতে এক ব্যক্তিকে মারধরের হুমকি দিতে শোনা যাচ্ছে। BGPM নেতা অলোক কান্ত থুলুং০এর দাবী যে সেই কণ্ঠস্বর হল বিমল গুরুং-এর। এদিকে রোশন গিরিকে এ নিয়ে প্রশ্ন করা হলে তিনি জানান যে তিনি এ বিষয়ে কিছু জানেন না।

Related Articles

Back to top button