রাজ্য

‘বঙ্গ বিজেপি অভিভাবকহীন, নিজের সন্তানদের আগলে রাখতে পারছে না’, ফের বোমা ফাটালেন হিরণ

কিছুদিন আগেই বিজেপি হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপ থেকে বেরিয়ে এসেছেন তিনি। বঙ্গ বিজেপির সঙ্গে তাঁর দূরত্বও তৈরি হয়েছে বেশ। বিজেপির সর্বভারতীয় সহ-সভাপতি তথা মেদিনীপুরের সাংসদ দিলীপ ঘোষের বিরুদ্ধেও সুর চড়িয়েছেন খড়গপুরের বিধায়ক হিরণ চট্টোপাধ্যায়। তবে কেন্দ্রীয় নেতৃত্বের বিরুদ্ধে কোনও অভিযোগ করতে শোনা যায়নি তাঁকে।

এরই মধ্যে ফের একবার বোমা ফাটালেন হিরণ। ফের একবার রাজ্য বিজেপিকে আক্রমণ করে বিস্ফোরক মন্তব্য করলেন বিধায়ক। তিনি বলেন যে বঙ্গ বিজেপি নাকি অভিভাবকহীন। এই কারণেই নিজেদের নেতাদের আটকে রাখতে পারছে না দল।

হিরণের কথায়, “বঙ্গ বিজেপি যেন অভিভাবকহীন! আগলে রাখতে পারছে না নিজের সন্তানদের। সংসারে বাবা-মায়ের মধ্যে অশান্তি হয়, ভাই-বোনের মধ্যে ঝগড়া হয়। দিনের শেষে আবার সব ঠিকও হয়ে যায়। তবে একজন অভিভাবক কিংবা বাবা-মায়ের কখনও নিজের সন্তানের হাত ছেড়ে দেওয়া উচিত নয়! তাহলে কিন্তু সন্তানরা হয় বিপথে চলে যাবে, নয় হারিয়ে যাবে কিংবা অনাথ হয়ে পড়বে”।

উল্লেখ্য, বিগত বেশ কিছুদিন ধরেই বিজেপির হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপ ছেড়েছেন বেশ কিছু নেতা-বিধায়ক। দল ছেড়েছেন অনেকেই। বিজেপির নতুন রাজ্য কমিটিতে জেলা সভাপতিদের নামের তালিকে প্রকাশ হওয়ার পর থেকেই শুরু হয়েছে বিদ্রোহ। কোথাও বৈঠক বা কোথাও আবার শান্তনু ঠাকুরের নেতৃত্বে একজোট হচ্ছেন সমস্ত বিদ্রোহী বিজেপি নেতারা।

এমন আবহে দলবিরোধী মন্তব্য করার কারণে জয়প্রকাশ মজুমদার ও রীতেশ তিওয়ারিকে গত রবিবার শোকজ করা হয় দলের তরফে। কিন্তুএর ২৪ ঘণ্টা কাটতে না কাটতেই গতকাল, সোমবার সন্ধ্যায় এই দুই রাজ্য বিজেপি নেতাকে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করা হয় দল থেকে। এক নির্দেশিকায় বলা হয়েছে যে রাজ্য বিজেপির তরফে জানানো হয়েছে যে শৃঙ্খলাকমিটির তদন্ত শেষ না হওয়া পর্যন্ত এই নির্দেশই বহাল থাকবে।

Related Articles

Back to top button