রাজ্য

বিধানসভায় গাড়ি ফেরত পাঠিয়ে দিলেন পার্থ চট্টোপাধ্যায়, এবার কী তবে মন্ত্রিত্ব থেকেও ইস্তফা দেবে তিনি? তুঙ্গে জল্পনা

এসএসসি নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় (SSC Scam Case) পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে (Partha Chatterjee) গ্রেফতার করেছে ইডি (ED)। তাঁকে ১০ দিনের হেফাজতে নিয়ে জেরা করছে কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা। কিন্তু গতকাল, মঙ্গলবার আচমকাই পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের গাড়ি দেখা গেল বিধানসভা (Assembly) চত্বরে। তবে গাড়ির মধ্যে ছিলেন না সেই অতি পরিচিত মুখের মানুষটি।

গত ১০ বছরেরও বেশি সময় ধরে এই গাড়ি করেই এক প্রান্ত থেকে অন্য প্রান্ত ঘুরতে দেখা গিয়েছে পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে। তিনি নিজে তো ইডি-র দফতরে অর্থাৎ সিজিও কমপ্লেক্সে। তাহলে তাঁর সেই গাড়ি বিধানসভা চত্বরে কী করে এল? এই গাড়িটি পরিষদীয় মন্ত্রী হিসেবে পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে বিধানসভা থেকে দেওয়া হয়েছিল। সেই গাড়িটিই বিধানসভায় ফেরত পাঠানো হয়েছে।

২০১১ সালে তৃণমূল বাংলায় ক্ষমতায় আসার পর পরিষদীয় দপ্তরের দায়িত্ব পালন করে চলেছেন পার্থ চট্টোপাধ্যায়। পরিষদীয় মন্ত্রী হিসেবে তাঁকে বিধানসভা থেকে গাড়ির ব্যবস্থা করে দেওয়া হয়। তাঁর গাড়ির নম্বর ডব্লিউ বি ১০-০০০৬। কিন্তু সেই গাড়িই মঙ্গলবার ফিরিয়ে দেওয়া হল বিধানসভায়। জানা গিয়েছে, পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের দফতর থেকেই গাড়িটি ফিরিয়ে দিতে বলা হয়েছে। সেই নির্দেশ মতোই এদিন বিধানসভা কর্তৃপক্ষের হাতে গাড়ির চাবি ফেরত দেওয়া হয়।

বর্তমানে পরিষদীয় দফতরের পাশাপাশি শিল্প দফতরের মন্ত্রিত্ব পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের উপর রয়েছে। তবে তিনি বিধানসভায় গাড়ি ফেরত দেওয়ার পর তিনি মন্ত্রিত্ব থেকেও ইস্তফা দেবেন কী না, সে নিয়ে উঠছে প্রশ্ন। আগামীকাল, বৃহস্পতিবার মন্ত্রিসভার বৈঠক রয়েছে। সেখানে মুখ্যমন্ত্রী-সহ অন্যান্য মন্ত্রীদেরও উপস্থিত থাকার কথা। এই বৈঠকে পার্থকে নিয়ে কোনও সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় কী না, সেটাই প্রশ্ন।

অন্যদিকে, পার্থ চট্টোপাধ‌্যায়ের নামে ও বেনামে শহরে কোনও সম্পত্তি রয়েছে কী না, থাকলে তা কতগুলি রয়েছে, সেসবের নিয়মিত কর দেওয়া হত কী না, সেইসব খতিয়ে দেখছে কলকাতা পুরসভা। এর পাশাপাশি শহরে নথিভুক্তহীন কত সম্পত্তি রয়েছে, সেগুলিরও তালিকা তৈরি করা হচ্ছে।

Related Articles

Back to top button