রাজ্য

বাংলায় এখন মাইক্রোস্কোপ দিয়ে গণতন্ত্র খুঁজতে হয়, মমতাকে তীব্র কটাক্ষ করলেন দিলীপ ঘোষ

“আমাদের বাংলায় মাইক্রোস্কোপ দিয়ে গণতন্ত্র খুঁজতে হবে”, মমতা সরকারকে আজ তীব্র কটাক্ষ করলেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ (Dilip Ghosh)। আজ বিজেপির ‘বাংলা বাঁচাও, গণতন্ত্র বাঁচাও’ (Bangla Bachao, Ganatantra Bachao) কর্মসূচি থেকে রাজ্য সরকারের উদ্দেশ্যে তীব্র কটাক্ষ করেন দিলীপবাবু (Dilip Ghosh)।

মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে (Mamata Banerjee) আক্রমণ করে বললেন, “মুখ্যমন্ত্রীর রাজ্যবাসীর উপর ভরসা নেই, হেরে যাওয়ার ভয়ে ভোট করাতে চাইছে না।” দিলীপ ঘোষ ছাড়াও আজ মমতাকে রীতিমতো কটাক্ষে বিদ্ধ করেছেন রাহুল সিনহা, মুকুল রায়, কৈলাস বিজয়বর্গীয় সহ বিজেপির শীর্ষ নেতৃত্ব।

এছাড়াও আজ এই কর্মসূচির অংশ হিসেবে রাজ্যে ৮০টি এসডিও অফিসের সামনে ধরনা বিক্ষোভ দেখান বিজেপি নেতা কর্মীরা।

ধর্মতলার এই সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন কেন্দ্রীয় নেতা কৈলাস বিজয়বর্গীয় (Kailash Vijayvargiya), মুকুল রায় (Mukul Roy) সহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ।

দিলীপবাবু এদিন চাঁচাছোলা ভাষায় বলেছেন যে, বাংলায় গণতন্ত্রের হত্যা করা হচ্ছে। কেবলমাত্র ভোটে হেরে যাওয়ার ভয়ে মুখ্যমন্ত্রী পুরভোট করালেন না। এর আগে মুখ্যমন্ত্রী নিজেই ইভিএম ভোটে জয়লাভ করলেও এখন তিনি ব্যালটের মাধ্যমে ভোট চাইছেন কেন? যদিও ইভিএম হোক কিংবা ব্যালট দুটোতেই আমরা মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে হারাবো। “সিপিএম বিরোধীদের সঙ্গে যা করেছে, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সরকারও বিরোধীদের সাথে তাই করছে” অভিযোগ তুলেছেন দিলীপবাবু।

“পুলিশ দিয়ে বিজেপি কর্মীদের ভয় দেখানো হচ্ছে। সন্ত্রাস চলছে রাজ্যে। এরাজ্যে বিধায়করাও সুরক্ষিত নয়। তাই পথে নামতে বাধ্য হচ্ছি আমরা।” সাফ বক্তব্য তাঁর

Related Articles

Back to top button