রাজ্য

‘একা খাব, অন্য কাউকে খেতে দেব না, এটা করা যাবে না, ‘দুয়ারে রেশন’ নিয়ে ডিলারদের হুঁশিয়ারি দিলেন মমতা

দুয়ারে রেশন প্রকল্প বন্ধ করা যাবে না। তা যে কোনও মূল্যে চলবেই। সরকার কোনও আপত্তির কাছে মাথা নত করবে না। আজ, বৃহস্পতিবার বিধানসভায় এমনই সাফ জানিয়ে দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। রেশন ডিলারদের হুঁশিয়ারি দিয়ে তিনি বলেন, “আমি একা খাব, আর কাউকে খেতে দেব না, এটা চলতে দেওয়া যাবে না”।

একুশের বিধানসভা নির্বাচনের আগে ‘দুয়ারে রেশন’ প্রকল্পের ঘোষণা করেছিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বিপুল ভোটে জিতে তৃতীয়বার ক্ষমতায় এসেছেন তিনি। এরপর গত বছর ১৬ই নভেম্বর থেকে দুয়ারে রেশন প্রকল্প চালু হয়। রেশন ডিলারদের সামগ্রী নিয়ে একটি পাড়া বা অঞ্চলের নির্দিষ্ট জায়গায় পৌঁছে দিতে হত। সেখান থেকে বিলি হত রেশন।

কিন্তু প্রথম থেকেই রেশন ডিলারদের একটা অংশ এই প্রকল্পের বিরোধিতা করে। তাঁদের দাবী ছিল, এই প্রকল্প অসাংবিধানিক। এই প্রকল্পের বিরোধিতা করে কলকাতা  হাইকোর্টের সিঙ্গল বেঞ্চের দ্বারস্থ হয়েছিলেন বেশ কিছু ডিলার। ডিলারদের দাবিী মেনে এই প্রকল্পকে অসাংবিধানিক বলে ঘোষণা করে হাইকোর্ট। কিন্তু এতে দমে যেতে মোটেই রাজি নন মুখ্যমন্ত্রী।

এদিন মুখ্যমন্ত্রীর স্পষ্ট জানিয়ে দেন, “মানুষের সুবিধার জন্য দুয়ারে রেশন হচ্ছে। সেটা চলবেই। রেশন ডিলারদের ৪৮০ কোটি টাকা ইনটেনসিভ দেওয়া হয়েছে। কারও গায়ের জোরের কাছে সরকার মাথা নত করবে না। তার জন্য যত দূর যাওয়ার যাব”।

আজ, বৃহস্পতিবার বিধানসভায় রেশন সংক্রান্ত একটি প্রশ্নের জবাবে মুখ্যমন্ত্রী জানান, “দুয়ারে রেশন হচ্ছে মানুষের সুবিধার জন্য। এতে সবার আপত্তি নেই। সমাজে ৯৯ শতাংশ ভালো লোক থাকলেও ১ শতাংশ মনে করে তারা কেবল নিজেরাই খাবে। নিজে খাব কিন্তু আর কাউকে খেতে দেব না, সেটা চলতে দেওয়া যাবে না”। মুখ্যমন্ত্রীর স্পষ্ট ইঙ্গিত, রেশন ডিলাররা যদি শেষ পর্যন্ত প্রকল্প বাস্তবায়নে রাজি না হন,  তাহলে রাজ্য সরকার কড়া পদক্ষেপের দিকেও হাঁটতে পারে।

Related Articles

Back to top button