সব খবর সবার আগে।

ফের বিতর্কিত মন্তব্যের প্যাঁচে মহুয়া, সংসদে নিয়ম ভঙ্গের কারণে তৃণমূল সাংসদকে নোটিশ বিজেপি সাংসদের

ফের একবার নিজের লাগামহীন মন্তব্যের জন্য বিপাকে পড়লেন তৃণমূল সাংসদ মহুয়া মৈত্র। প্রাক্তন প্রধান বিচারপতি সম্পর্কে আপত্তিকর মন্তব্য করায় বিজেপি সাংসদ নিশিকান্ত দুবের তরফে স্বাধিকার ভঙ্গের নোটিশ পাঠানো হল মহুয়া মৈত্রকে। আগামী ২৫ তারিখের মধ্যে সেই নোটিশের জবাব দিতে বলা হয়েছে তৃণমূল সাংসদকে। তবে মহুয়া মৈত্র জানিয়েছেন যে তিনি কোনও নোটিশ পাননি।

আগে জানা গিয়েছিল যে মহুয়ার বিরুদ্ধে কোনও পদক্ষেপ নেওয়া হবে না। কিন্তু সংসদ বিষয়ক মন্ত্রী প্রহ্লাদ যোশী  আগেই ইঙ্গিত দিয়েছিলেন যে মহুয়ার বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নেওয়া হবে। সেই অনুযায়ীই কাজ হল। যোশীর কথায়, “এভাবে রাম মন্দির, প্রধান বিচারপতি ও অন্যায় প্রসঙ্গ তুলে ধরা গুরুতর ব্যাপার। আমরা উপযুক্ত পদক্ষেপ করার কথা ভাবছি”। সেই অনুযায়ী, স্বাধিকার ভঙ্গের নোটিশ পাঠানো হল মহুয়াকে।

আরও পড়ুন- ‘মিঠুন চক্রবর্তী মূলত একজন নকশাল’, অভিনেতার বিজেপিতে যোগ দেওয়ার প্রসঙ্গে সৌগত রায় 

সংসদের নিয়ম অনুযায়ী, সংসদে বিতর্কের সময় প্রতিটি সদস্যকে সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি ও হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতিদের সম্মানরক্ষার দিকটি মাথায় রাখতে হবে। কিন্তু সেই নিয়ম ভেঙেছেন মহুয়া। তাই তাঁকে নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

তবে, মহুয়া নিজের বক্তব্যে কোথাও প্রধান বিচারপতির নাম উল্লেখ করেননি। সংসদে বিতর্কের সময় বর্তমান বিচারপতিদের সম্মান রক্ষার বিষয়টি মাথায় রাখতে হয় সাংসদদের। কিন্তু প্রাক্তনদের ক্ষেত্রেও সেই একই নিয়ম প্রযোজ্য কী না, তা নিয়েও প্রশ্ন উঠেছে।

আরও পড়ুন- ব্রিগেডের ১১ দিনের মাথায় ফের রাজ্যে মোদী, জোর কদমে চলছে নির্বাচনের প্রস্তুতি

বলে রাখি, গত ৯ই ফেব্রুয়ারি, বাজেট অধিবেশনে রাষ্ট্রপতির বক্তব্যের উপর আলোচনা চলছিল। বক্তব্য রাখছিলেন মহুয়া মৈত্র। তিনি সেই সময় বলেন, “দেশের বিচারব্যবস্থা আর পবিত্র নেই। যেদিন থেকে প্রধান বিচারপতি নিজের বিরুদ্ধে ওঠা যৌন নির্যাতনের অভিযোগের বিচার নিজেই করেছেন, সেদিন থেকেই ভারতীয় বিচারব্যবস্থা পবিত্রতা হারিয়েছে। নিজেকে নির্দোষ ঘোষণা করা, রাজ্যসভায় সাংসদ হিসেবে নিজের মনোনয়নের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। জেড ক্যাটেগরির নিরাপত্তা পেয়েছেন”।

এই কথা বলার পরই মহুয়া মৈত্র সংসদের নিয়ম ভেঙেছেন বলে বলা হয়। তবে মহুয়া কোনও বিচারপতির নাম উল্লেখ করেননি। মহুয়ার এই মন্তব্যের জন্যই তাঁকে স্বাধিকার নোটিশ পাঠান বিজেপি সাংসদ।

You might also like
Comments
Loading...