রাজ্য

‘ভগবান এই টাকা কী তোমার’? এসএসসি দুর্নীতিতে ধৃত পার্থ-অর্পিতাকে ব্যঙ্গ করা ব্যানারে সাজল টোটো, মুহূর্তে ভাইরাল নয়া সাজের সেই টোটো

এসএসসি নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় ইডির হাতে গ্রেফতার হয়েছেন রাজ্যের প্রাক্তন মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় ও তাঁর ঘনিষ্ঠ বান্ধবী অর্পিতা মুখোপাধ্যায়। আপাতত জেল হেফাজতে রয়েছেন দু’জনে। অর্পিতার দু’টি ফ্ল্যাট থেকে ৫০ কোটি টাকা ও তাল তাল সোনা-রুপো মিলেছে। এদিকে ইডি-র কাছে জেরায় পার্থ ও অর্পিতা দুজনেই বলেছেন যে ওই টাকা তাদের নয়।

তাহলে এবার বড় প্রশ্ন, এই তো কোটি কোটি টাকা আসলে কার? এহেন পরস্থিতিতে এবার মুহূর্তে ভাইরাল হলেন বীরভূমের এক টোটোচালক। তাঁর টোটোর পিছনে ব্যানারে লেখা, “ভগবান এই টাকা কী তোমার”? টোটো চড়ার জন্য না হলেও, এই ব্যানারের ছবি তোলার জন্য সকলে ভীত জমিয়েছে ওই টোটোর চারিদিকে।

পার্থ-অর্পিতা এসএসসি মামলায় গ্রেফতার হওয়ার পর থেকেই তাদের নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় অনেক মিম, ব্যঙ্গ হতে দেখা গিয়েছে। নানান নেটিজেনরা নানান ধরণের কমেন্টও করেছেন এই নিয়ে। এবার সেই তালিকায় যুক্ত হলেন বীরভূমের দোর্দণ্ডপ্রতাপ তৃণমূল নেতা অনুব্রত মণ্ডলের প্রতিবেশী টোটোচালক সুকেশ চক্রবর্তী। অর্পিতার ফ্ল্যাট থেকে উদ্ধার হওয়া টাকার ছবি ও পার্থ-অর্পিতার ছবি দিয়ে ব্যানার বানিয়ে মুহূর্তে ভাইরাল ওই ব্যক্তি।

এই টোটোর পিছনে ব্যানারে একদিকে রয়েছে অর্পিতার ছবি ও অন্যদিকে পার্থর ছবি। মাঝে টাকার স্তূপ। আর পার্থ-অর্পিতার নীচে লেখা, ‘এ টাকা আমার নয়’। আর এরপরই নীচে প্রশ্ন, “ভগবান এ টাকা কী তোমার”? নয়া এই টোটোর সাজের ছবি তুলতে ভিড়ও জমাচ্ছে লোকজন। টোটোচালক সুকেশের কথায়, প্রতিবাদ করতেই নিজের গাড়িতে এই ব্যানার লাগিয়েছেন তিনি।

টোটোচালক সুকেশ চক্রবর্তী এই বিষয়ে বলেন, “রোদ-বৃষ্টি উপেক্ষে করে চাকরির জন্য কলকাতায় ধর্না দিচ্ছেন প্রার্থীরা৷ আর এরা মানুষের টাকা চুরি করে বসে আসে৷ এই দুর্নীতির প্রতিবাদ করতে ও মানুষকে সচেতন করতেই আমি টোটোতে এই রকম ব্যানার লাগিয়েছি। যাত্রীরা দেখেও খুশি”।

Related Articles

Back to top button