রাজ্য

‘বাংলার মেয়ে এখনও ঘুমোচ্ছেন’, পেট্রোপণ্যের উপর রাজ্য সরকারের শুল্ক না কমানো নিয়ে মমতাকে খোঁচা শুভেন্দুর

দীপাবলিতে দেশবাসীকে বড় স্বস্তি দিয়েছে মোদী সরকার। পেট্রোল, ডিজেলের উপর থেকে আবগারি শুল্ক কমানোর জেরে পেট্রোলের দাম ৫ টাকা ও ডিজেলের দাম ১০ টাকা কমেছে। এই নিয়ে এবার আজ, বৃহস্পতিবার খেজুরিতে এক কালীপুজোর উদ্বোধনে গিয়ে মমতা সরকারকেন একহাত নিলেন রাজ্যের বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী।

এদিন ত্রিপুরা, অসম, উত্তরপ্রদেশের প্রসঙ্গ টেনে তিনি বলেন, “জ্বালানি তেলের দাম কমাতে কেন্দ্র ডিজেলে ১০ টাকা ও পেট্রলে ৫ টাকা করে এক্সাইজ ডিউটি কমিয়েছে। কেন্দ্রের ওই সিদ্ধান্তের এক ঘন্টার মধ্যে ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেব পেট্রলে ৭ টাকা ও ডিজেলে ৭ টাকা করে দাম কমিয়েছেন। যোগী আদিত্যনাথ, হিমন্ত বিশ্ব শর্মাও পেট্রোল, ডিজেলের দাম কমিয়েছেন। কিন্তু বাংলার মেয়ে এখনও ঘুমোচ্ছেন”।
এদিন খেজুরি বিধানসভার বিদ্যাপীঠে ‘মাতৃ বন্দনা’ পরিচালিত কালীপুজোর উদ্বোধনে যান রাজ্যের বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী। প্রদীপ জ্বালিয়ে, ফিতে কেটে পুজোর উদ্বোধন করেন তিনি। এরপরই পেট্রোপণ্যের দাম কমানো নিয়ে মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ তোলেন শুভেন্দু। তাঁর কথায়, “বাংলার মেয়ে পশ্চিমবাংলাতেও বিপ্লব দেবের পথ অনুসরণ করে দাম আরও কমানোর ব্যবস্থা করবেন। কারণ তিনি ১০০ টাকা পেট্রলের মধ্যে নিজে ৪৩ টাকা নিয়ে যান। আর তাঁর ছানাদের বাজারে নামিয়ে দেন মোদিজি মুর্দাবাদ বলার জন্য”।

আবার পেট্রোল, ডিজেলের দাম কমানো প্রসঙ্গে নরেন্দ্র মোদি সরকারের প্রশংসা করার পাশাপাশি ইউপিএ-২ সরকারকেও তোপ দেগেছেন নন্দীগ্রামের বিধায়ক। তিনি আরও বলেন, “পেট্রোল, ডিজেলের দাম কেন্দ্রীয় সরকারের হাতে নেই। দাম নিয়ন্ত্রণ করে পেট্রোপণ্য অথরিটি। ইউপিএ-২ সরকার পেট্রোপণ্যের বন্ড ছেড়ে গিয়েছিল। ইউপিএ-২ সরকারের সেই ঋণ এখনও শোধ করছে বর্তমান ভারত সরকার, মোদি সরকার। কারণ মোদীজি চান, আত্মনির্ভর ভারত, বাণিজ্যের ভারত। আগামী ২২ সাল পর্যন্ত এই ঋণ শোধ করতে হবে ভারত সরকারকে। তারপরেও কেন্দ্র যতটুকু করতে পারে, পেট্রোল, ডিজেলের উপর এক্সাইজ কর কমিয়েছে মোদী সরকার”।

বলে রাখি, গতকাল, বুধবারই কেন্দ্র সরকারের তরফে পেট্রোলের উপ ৫ ও ডিজেলের উপর ১০ টাকা কমানোর কথা ঘোষণা করা হয়। পেট্রোল ও ডিজেলের উপর থেকে মোদী সরকার শুল্ক কমানোর ঘোষণা করার পর এবার বিজেপি শাসিত ৯টি রাজ্য পেট্রোপণ্যের উপর শুল্ক কমানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে। ত্রিপুরা, অসম, উত্তরপ্রদেশ, মণিপুর, গোয়া, কর্ণাটক, গুজরাত, উত্তরাখণ্ড, হিমাচল প্রদেশের সরকার পেট্রোল ও ডিজেলের উপর থেকে আবগারি শুল্ক কমানোর কথা ঘোষণা করেছে।

Related Articles

Back to top button