সব খবর সবার আগে।

হিন্দু ভাবাবেগকে আঘাত দেবলীনার! ক্ষোভ প্রকাশ করে অভিনেত্রীর বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দায়ের বিজেপি নেতা তরুণজ্যোতি তিওয়ারির

হিন্দু ভাবাবেগকে চরম অশ্রদ্ধা ও আঘাত করার জন্য অভিনেত্রী দেবলীনা দত্তের বিরুদ্ধে বাগুইহাটি থানায় অভিযোগ দায়ের করলেন বিজেপি নেতা ও আইনজীবী তরুণজ্যোতি তিওয়ারি।

TARUNJYOTI কথা রাখে। অনিন্দ্য দা এবং দেবলীনা দিদি কে একটাই অনুরোধ করবো পরেরবার হিন্দু ধর্ম নিয়ে কথা বলার আগে একবার…

Posted by Tarunjyoti Tewari on Monday, 18 January 2021

গতকাল, সোমবার রাতেই তরুণজ্যোতি জানান, দেবলীনা দত্ত বা সায়নী ঘোষের মতো স্বঘোষিত বুদ্ধিজীবীদের কে কারা হুমকি দিচ্ছেন, তিনি তা জানেন না। তবে তিনি যা ব্যবস্থা নেবেন, তা যে আইনসম্মতই হবে, একথাও স্পষ্ট জানান তিনি। এও বলেন যে, তাঁরা নিজেদের ধর্মের অপমান করতে পারেন, কিন্তু তিনি তাঁর ধর্মের অপমান মেনে নেবেন না। কোনও দলের কর্মকর্তা হিসেবে নয় বরং একজন হিন্দু হিসেবে তিনি তাঁর ধর্মের দিকে আসা আঘাতের প্রতিবাদ করবেন বলেই জানান তিনি।

কে বা কারা সায়নী বা দেবলীনার মত স্বঘোষিত বুদ্ধিজীবীদের হুমকি উল্টোপাল্টা দিচ্ছে জানিনা।

কিন্তু গত কালকে বলেছিলাম,…

Posted by Tarunjyoti Tewari on Monday, 18 January 2021

 

আসল ঘটনাটি কী?

কিছুদিন আগেই অভিনেত্রী দেবলীনা দত্ত একটি সংবাদমাধ্যমের দ্বারা আয়োজিত একটি টক শো-তে এসে হিন্দুত্ব বিরোধী একটি মন্তব্য করেন। অনিন্দ্য চট্টোপাধ্যায়ের একটি মন্তব্যের উত্তর দিতে গিয়ে অভিনেত্রী বলেন যে, তিনি নিজে নিরামিষাশী হলেও, তাঁকে যদি বলা হয় তাহলে দুর্গাপুজোর অষ্টমী ও নবমীর দিন তিনি গরুর মাংস রান্না করে দেবেন। তাঁর এই মন্তব্যেরই তীব্র সমালোচনা করেন অনেকেই। সোশ্যাল মিডিয়াতে বিতর্ক শুরু হয় তাঁর এই মন্তব্যকে ঘিরে। সকলেরই দাবী, দুর্গাপুজোর অষ্টমীর দিনের মতো শুদ্ধ একটি দিনে অভিনেত্রী কী করে গরুর মাংস রান্না করা বা খাওয়ার কথা বলতে পারেন। এই কথা অবশ্যই হিন্দু ভাবাবেগকে আঘাত করে।

অভিনেত্রীর এই মন্তব্যের তীব্র প্রতিবাদ করেন আইনজীবী ও বিজেপি নেতা তরুণজ্যোতি তিওয়ারি। তাঁর মতে, অভিনেত্রী যা খুশি খেতেই পারেন বা রান্না করতেই পারেন, সেটা তাঁর ইচ্ছা। কিন্তু সে সম্বন্ধে প্রকাশ্যে আলোচনা করা, তা একেবারেই কাম্য নয়। এমন ঘটনা হিন্দুত্ববিরোধী মনোভাবকেই প্রশয় দেয়। এর জেরে সামাজিক স্তরে ঘৃণা ছড়াতে পারে বলেও অভিযোগ বিজেপি নেতার।

তবে নিজের মন্তব্যের সপক্ষে যুক্তি দিয়ে অভিনেত্রী নিজের বাক স্বাধীনতার কথা বললে, তরুণজ্যোতির বক্তব্য, বাক স্বাধীনতা মানে এই নয় যে কোনও ব্যক্তি কোনও ধর্মের অপমান করতে পারেন। হিন্দুত্ববাদকে রক্ষার্থেই অভিনেত্রীর এই মন্তব্যের তীব্র নিন্দা করে থানায় অভিযোগ দায়ের করেন তরুণজ্যোতি তিওয়ারি। তরুণবাবু এও বলেন যে দেবলীনা দেবী কী জনসমক্ষে দাঁড়িয়ে ইদের দিন শুয়োরের মাংস খাওয়ার কথা বলতে পারবেন? কিন্তু তাঁর এই প্রশ্নের কোনও উত্তর মেলেনি দেবলীনা থেকে।

এদিকে, দেবলীনার মন্তব্যকে সমর্থন করে মাঠে নামেন অভিনেত্রীর স্বামী তথাগত মুখোপাধ্যায়। তাঁর দাবী, নিজের ইচ্ছায় মন্তব্য করায় দেবলীনাকে বিভিন্ন ধরণের হুমকি দেওয়া হচ্ছে। এরপর তরুণজ্যোতি তিওয়ারির উপর নিজের ক্ষোভ উগড়ে দেন তিনি। এছাড়াও, অন্যান্য অভিনেতা-অভিনেত্রীদের উদ্দেশ্যে তিনি প্রশ্ন রাখেন, দেবলীনার দিকে আসা এই কটূক্তি বা তরুণজ্যোতির বিরোধিতা করবেন কী না? তবে এই বিষয়ে তরুণজ্যোতির বক্তব্য, কারা দেবলীনাকে এই হুমকি দিচ্ছে, তা তিনি জানেন না। তবে তিনি যা ব্যবস্থা নেওয়ার তা আইনি পথেই নেবেন।

You might also like
Comments
Loading...