সব খবর সবার আগে।

বড় খবরঃ এক স্প্রেতেই করোনা হবে কুপোকাত, মিলল ছাড়পত্র, বাজারে আসছে SaNOtize!

এবার করোনা থেকে মুক্তি মিলবে নিমেষেই। কানাডার ওষুধ প্রস্তুতকারক সংস্থা স্যানোটাইজ (SaNOtize) এবার নিয়ে এল নাইট্রিক অক্সাইডযুক্ত নাকের স্প্রে, যার সাহায্যে ৯৯.৯ শতাংশ করোনা ভাইরাস মরবে। ব্রিটেন ও কানাডাতে ইতিমধ্যেই এই নাকের স্প্রে-কে জরুরি ভিত্তিতে অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।

প্রাক্তন ব্রিটিশ মন্ত্রী রব উইলসন ব্রিটেনে এই স্যানোটাইজের (SaNOtize)-এর এই স্প্রে-কে অনুমোদন দিয়েছেন। তাঁর বিশ্বাস, করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে এই নাকের স্প্রে বেশ কার্যকরী। তাঁর মতে, “এটা এমন একটি জিনিস যা কোনও ব্যক্তি যখন করোনা আক্রান্ত হবে, তখন চিকিৎসা হিসেবে তা ব্যবহার করতে পারবেন। এনএইচএস হাসপাতালে এই স্প্রে-র দ্বিতীয় ট্রায়াল হয়েছে। ব্রিটেনে এই ট্রায়ালের পর দেখা গিয়েছে যে বেশ তাৎপর্যপূর্ণভাবে ২৪ ঘণ্টায় ৯৫ শতাংশ ও ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে ৯৯..৯ শতাংস ভাইরাস দমন করা সম্ভব হয়েছে”।

আরও পড়ুন- বিশেষ এই ফলেই মিলবে করোনা থেকে মুক্তি! দাবী তেলেঙ্গানার ৩ গ্রামের বাসিন্দাদের

এই সংস্থার কর্ণধারের মতে, এই নাকের স্প্রে তাৎক্ষনিক প্রভাব ফেলে এবং কোনও ব্যক্তি তিনি করোনার সংক্রমিত, তাঁকে দ্রুত সুস্থ করে তুলতে সক্ষম। তিনি বলেন, “এই নাকের স্প্রে-কে ব্রিটেন ও কানাডাতে জরুরি ভিত্তিতে প্রয়োগ করা হয়েছে। আমরা মনে করি, এই স্প্রে প্রতিরোধকারী কোনও ওষুধের মতোই সমান কার্যকরী”।

এই নাকের স্প্রে-র ট্রায়াল শুরু হয় সারের অ্যাসফোর্ড ও সেন্ট পিটার’স হাসপাতালে চলতি বছরের ১১ই জানুয়ারি থেকে। নাইট্রিক অক্সাইডের উপর নির্ভর করে স্যানোটাইজ রিসার্চ অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট কর্পোরেশন এই স্প্রে-টি প্রস্তত করেছে। এই নাইট্রিক অক্সাইড মানব শরীরের আণুবীক্ষণিক পরজীবী যা কোভিড-১৯-এর কারণ, তা বিনাশ করতে সক্ষম।

স্যানোটাইজ (SaNOtize)-এর বৈজ্ঞানিক ডঃ ক্রিস মিলার বলেন, “এটি একটি সাধারণ নাকের স্প্রে-র মতোই। এটা পকেটে নিয়ে আপনি ঘুরতে পারবেন। যদি কেউ আপনার সামনে হাঁচি দেন, তাহলে সঙ্গে সঙ্গে এই স্প্রে-টি বের করে নাকে চালান করুন। এই স্প্রে-টি ভাইরাস সংক্রমণ থেকে আপনাকে বাঁচাবে এবং করোনা ভাইরাস থেকেও রক্ষা করবে”।

আপাতত, ইজরায়েলে এই স্প্রে-টি প্রস্তুতির কাজ চলছে। প্রস্তুতকারীরা অন্যান্য দেশের সরকারের সঙ্গেও এই স্প্রে-টির অনুমোদন পাওয়া নিয়ে আলোচনা করছেন। ভারতেও এই স্প্রে-টি অনুমোদন দেওয়া হয় কী না, তা আলোচনা করা হচ্ছে।

You might also like
Comments
Loading...