সব খবর সবার আগে।

করোনার জেরে পিছিয়ে যাচ্ছে বিশ্বকাপের বাছাইপর্বের খেলা

WHO ঘোষিত বৈশ্বিক মহামারী করোনাভাইরাসের প্রভাবে একের পর এক ক্রীড়া আসর বন্ধের খবর শোনা যাচ্ছে। এবার এই তালিকায় যুক্ত হতে যাচ্ছে ২০২২ কাতার বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের খেলাও। ফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা ফিফাও এমনটাই চাইছে।

মার্চ আর এপ্রিলে মাঠে গড়ানোর কথা ছিল ২০২২ বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের বেশকিছু খেলা। কিন্তু করোনাভাইরাস আতঙ্কে এরইমধ্যে এশিয়া অঞ্চলের বাছাইপর্ব স্থগিত রাখা হয়েছে। বন্ধ হয়ে গেছে ইউরো-২০২০ বাছাইপর্বের খেলা। একই দশা হয়েছে ইউরোপ-আমেরিকার সকল শীর্ষ ফুটবল লিগের ক্ষেত্রেও। এরপর দক্ষিণ আমেরিকা অঞ্চল থেকেও বিশ্বকাপ বাছাইপর্ব স্থগিতের আহ্বান জানানো হয়।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে ফিফার পক্ষ থেকে বিশ্বকাপ বাছাইয়ে অংশগ্রহণকারী সকল দেশকে বাছাইপর্বের ম্যাচ খেলা থেকে আপাতত বিরত থাকার আহ্বান জানানো হয়েছে। যদিও স্থগিতের বিষয়ে আনুষ্ঠানিক ঘোষণা এখনও আসেনি। তবে সতর্কতামূলক ব্যবস্থা হিসেবে আন্তর্জাতিক ম্যাচের জন্য ক্লাবগুলোর জন্য বাধ্যতামূলক খেলোয়াড় ছাড়ার নিয়ম শিথিল করেছে ফিফা।

এক বিবৃতিতে ফিফা জানিয়েছে, করোনাভাইরাসের কারণে স্বাস্থ্য ঝুঁকি থাকায় নিজ নিজ জাতীয় দলের হয়ে খেলার জন্য খেলোয়াড়দের ছাড় দেওয়ার যে নিয়ম আছে, তা আপাতত স্থগিত করা হচ্ছে। অর্থাৎ চাইলেই আপাতত নিজ দেশের হয়ে খেলতে পারবেন না ফুটবলাররা। তাছাড়া আন্তর্জাতিক ম্যাচগুলো যদি পিছিয়ে দেওয়া হয় তাহলে এর প্রয়োজনও পড়বে না।

You might also like
Leave a Comment